Press "Enter" to skip to content

আমেরিকাকে সাহায্য করায় হেলিকপ্টারে বেঁধে মার্কিন অনুবাদকে আকাশে আকাশে ওড়াল তালিবান


নয়া আফগানিস্তানে (Afghanistan) ২০ বছর পর ক্ষমতা দখল করা যতই নিজেদের ‘নতুন” বলে দাবি করুক না কেন, রোজই তাঁদের নির্মম অত্যাচারের কাহিনী সামনে আসছে। মহিলা, নিরীহ আফগানিদের উপর অত্যাচার থেকে শুরু করে জঙ্গিদের সঙ্গে ওঠাবসা, সবই প্রমাণ করছে যে তালিবান তালিবানেই আছে। আর এরই মধ্যে তালিবানের নির্মম অত্যাচারের এক ভিডিও (Video) সামনে এসেছে। ভিডিওতে একটি চপারের মধ্যে এক ব্যক্তিকে ঝুলিয়ে রাখতে দেখা গিয়েছে।

আফগানিস্তানের কান্দাহারে তালিবানদের অত্যাচার সমস্ত মানবতাকে হার মানাচ্ছে। সেখানে এক অনুবাদককে উড়ন্ত হেলিকপ্টারের মধ্যে বেঁধে ওড়াচ্ছে তালিবানরা। রিপোর্ট অনুযায়ী, যেই হেলিকপ্টারে ওই অনুবাদককে এমন ভাবে ঝুলিয়ে রাখা হয়েছে, সেটি মার্কিন সেনার হেলিকপ্টার। ওই হেলিকপ্টারটি আমেরিকা আফগানিস্তানের সেনাকে দিয়েছিল।

https://twitter.com/i/broadcasts/1vOxwEXlkgoGB

তালিবানের মুখপাত্র জবিউল্লাহ মুজাহিদ আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনার শেষ বিমান চলে যাওয়ার পর খুশি জাহির করে এই ঘটনাকে আফগানিস্তানের স্বাধীনতার সঙ্গে জুড়েছে। তাঁর মতে এবার গোটা দেশ প্রকৃত স্বাধীনতা পেয়েছে। আর কাবুল এয়ারপোর্ট থেকে শেষ মার্কিন সেনা চলে যাওয়ার পর তালিবানরা আত্মহারা আনন্দে মেতে উঠেছে।

তালিবানরা বিমানবন্দরে ঢুকে আনন্দে হাওয়ায় ফায়ারিং করতে থাকে। এমনকি তাঁরা বা ফাটায়। আকাশে ফায়ার করে একের পর এক রকেট। একদিকে তালিবানরা যখন আনন্দে মাতোয়ারা। তখন অন্যদিকে আফগানরা আতঙ্কে প্রহর গোনা শুরু করে দেয়।