Press "Enter" to skip to content

আসাউদ্দিন ওয়েসির বাড়ির কাছেই রামানুজাচার্যের ২১৬ ফুট উঁচু মূর্তি! উন্মোচন করবেন প্রধানমন্ত্রী মোদী

[ad_1]

দেশের সমাজ সংস্কারক ও গুণী মানুষজনের সন্মান দেবার জন্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বে অনেক মূর্তি স্থাপন হয়েছে। এর মধ্যে সর্দার বল্লভভাই প্যাটেলের মুর্তি বিশ্ব রেকর্ড করছে। যেমন সেখানে পর্যটন শিল্পের উন্নতি হয়েছে সেইরকম দেশ বিদেশের মানুষ জানতে পেরেছে সর্দার প্যাটেলের দেশের জন্য ভূমিকা কি। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি 5 ফেব্রুয়ারি, 2022-এ হায়দ্রাবাদে সাধক ও সমাজ সংস্কারক রামানুজাচার্যের মূর্তি উন্মোচন করবেন। তাঁর 216 ফুট উঁচু মূর্তিটির নাম দেওয়া হয়েছে ‘স্ট্যাচু অফ ইকুয়ালিটি’। এই মূর্তিটি হায়দ্রাবাদের শামশাবাদে তৈরি করা হয়েছে।

রামানুজাচার্যের 1000 তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে, 2 ফেব্রুয়ারি থেকে অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। এর নাম দেওয়া হয়েছে রামানুজ সহস্রাব্দ অনুষ্ঠান। অনুষ্ঠানে রামানুজাচার্যের দুটি মূর্তি উন্মোচন করা হবে। 216 ফুট উঁচু মূর্তিটি সোনা, রূপা, তামা, পিতল এবং দস্তা দিয়ে তৈরি। দ্বিতীয় মূর্তিটি স্থাপন করা হবে মন্দিরের গর্ভগৃহে। যা রামানুজাচার্যের 120 বছরের যাত্রার স্মরণে 120 কেজি সোনা দিয়ে তৈরি।

এই মন্দির সম্পর্কে বিস্তারিত বলতে গেলে এই মূর্তিটির সাথে 108টি মন্দিরও তৈরি করা হয়েছে, যার কারুকার্য এমন যে কয়েক মিনিটের জন্য চোখের পাতা থেমে যায়। স্ট্যাচু অফ ইকুয়ালিটি তৈরি করতে 18 মাস সময় লেগেছে, যার জন্য ভাস্কররা অনেকগুলি নকশা প্রস্তুত করেছিলোএবং সেগুলি স্ক্যান করার পরে, সেরা মূর্তিটিকে একটি বিশাল আকার দেওয়া হয়েছিল। এই মূর্তির উচ্চতা 108 ফুট, যেখানে মূর্তির ত্রিদন্ডমের উচ্চতা 138 ফুট। মোট মূর্তির উচ্চতা 216 ফুট।

বৈষ্ণব সাধক রামানুজাচার্য 1017 সালে তামিলনাড়ুর শ্রীপেরুমবুদুরে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি তামিল ব্রাহ্মণ পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি কাঞ্চিতে গুরু যমুনাচার্যের কাছে দীক্ষা নেন। তিনি শ্রীরঙ্গমের যথিরাজ নামে এক সন্ন্যাসীর কাছ থেকে সন্ন্যাস গ্রহণ করেন। এরপর তিনি সারা ভারত ভ্রমণ করেন এবং বেদান্ত ও বৈষ্ণবধর্মের প্রচার করেন। এই সময়ে তিনি শ্রীভাষ্যম এবং বেদান্ত সংগ্রহালয় প্রভৃতি গ্রন্থ রচনা করেন। তাকে সম্মান জানানোর জন্য প্রধানমন্ত্রী এই বিশাল আয়োজনের মাধ্যমে উনাকে স্মরণ করবেন।

[ad_2]