Press "Enter" to skip to content

ইসলাম অবমাননার জের, পাকিস্তানে ৮ বছরের হিন্দু বাচ্চাকে দেওয়া হতে পারে ফাঁসি


নয়া পাকিস্তান (Pakistan) থেকে অবাক করা এক খবর সামনে আসছে। সেখানে মাত্র আট বছরের এক হিন্দু শিশু মৃত্যুর সাজার সম্মুখীন হতে চলেছে। ওই আট বছরের বাচ্চার বিরুদ্ধে অবমামনার অভিযোগ উঠেছে। এই প্রথম এক শিশুর বিরুদ্ধে ধর্ম অবমাননার মামলা চলছে। এই খবর প্রকাশ্যে আসার পর গোটা বিশ্বের মানুষই অবাক হয়ে গিয়েছে। অন্যদিকে, ওই শিশুর পরিবার জানিয়েছে যে তাঁকে ইচ্ছে করে ফাঁসানো হয়েছে।

ওই শিশুর বিরুদ্ধে অভিযোগ, গত মাসে সে ইচ্ছে করে একটি মাদ্রাসার লাইব্রেরির কার্পেটে প্রসাব করেছে। ওই মাদ্রাসায় ধার্মিক পুস্তক থাকত বলে জানা গিয়েছে যে। ব্রিটিশ পত্রিকা দ্য গার্ডিয়ানের সঙ্গে কথা বলার সময় নির্যাতিতর পরিবার জানায়, ‘আট বছরের শিশু এখনও ধর্ম অবমাননার আইন কী, সেটাই জানে না। তাঁকে ইচ্ছে করে ফাঁসানো হচ্ছে। ওকে এক সপ্তাহ ধরে জেলে রাখা হয়েছে। ও এটাও জানেনা যে, তাঁর অপরাধ কী।”

আট বছরের শিশুর এক আত্মীয় জানান, ‘আমরা আমাদের দোকান আর কাজ বন্ধ করতে বাধ্য হয়েছি। গোটা হিন্দু সম্প্রদায়ের মধ্যে আতঙ্কের মহল সৃষ্টি হয়েছে। ওঁরা আমাদের থেকে বদলা নিতে পারে। আমরা বাড়িঘর ছেড়ে চলে এসেছি, এখন আর ওখানে যেতে চাই না। আমরা জানি অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে কোনও কড়া পদক্ষেপ নেওয়া হবে না। আমাদের নিরাপত্তার জন্য কিছুই করা হবে না। কারণ আমরা সংখ্যালঘু।”

উল্লেখ্য, পাকিস্তানে ধর্ম অবমাননার অভিযোগ উঠলে অভিযুক্তকে ফাঁসির সাজা দেওয়ার নিদান রয়েছে। কিন্তু এখনও পর্যন্ত এই অভিযোগে কাউকেই ফাঁসি দেওয়া হয় নি। অন্যদিকে, ধর্ম অবমাননার অভিযোগে এত ছোট একটি বাচ্চাকে অভিযুক্ত করার ঘটনা পাকিস্তানে প্রথম।