Press "Enter" to skip to content

উত্তর প্রদেশে রাতারাতি ১০০ বছরের পুরনো মসজিদ ভেঙে ফেলল প্রশাসন, সকালে উঠে ‘থ” সবাই


বারাবাঙ্কিঃ উত্তর প্রদেশের বারাবাঙ্কি জেলার রামসেনহিঘাট তহসিলে থাকা একটি মসজিদ ভেঙে ফেলে প্রশাসন। মসজিদ ভেঙে ফেলার চারিদিকে আগুনের মতো ছড়িয়ে পড়ে, এরপর মুসলিম সম্প্রদায় কড়া আপত্তি জাহির করে দোষীদের কঠোর সাজা এবং মসজিদের পুনর্নির্মাণের দাবি করে। মঙ্গলবার মুসলিম ধর্মগুরুরা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর সচিবের কাছে এই বিষয়ে স্মারকলিপিও জমা দেয়।

https://platform.twitter.com/widgets.js

মুসলিম ধর্মগুরু মহম সাবির আলি রিজভি বলেন, ‘গরিব নওয়াজ মসজিদটিকে প্রশাসন কোনও আইন না মেনেই সোমবার রাতে ভেঙে ফেলে। ওই মসজিদ ১০০ বছরের পুরনো আর উত্তর প্রদেশ সুন্নি সেন্ট্রাল ের অধীনে রয়েছে। এই মসজিদ নিয়ে কোনওদিন কোনও বিবাদ ছিল না। সরকার এই কাজে দোষী আধিকারিকদের সাসপেন্ড করে আদালতে তাঁদের বিচার করাক এবং মসজিদের পুনর্নির্মাণ করানো হোক।”

https://platform.twitter.com/widgets.js

একজন সমাজসেবী জানান, ‘মার্চ মাসে উপ-জেলাআধিকারিক মসজিদ কমিটির কাছে মসজিদ সম্বন্ধীয় কাগজপত্র চেয়েছিল। ওই নোটিশের বিরুদ্ধে মসজিদ কমিটি এলাহাবাদ ে একটি পিটিশন দাখিল করেছিল। তাঁদের পিটিশনে আদালত ১৮ মার্চ থেকে ১৫ দিনের মধ্যে জবাব দাখিল করার সময় দিয়েছিল। এরপর ১ এপ্রিল মসজিদ কমিটির পক্ষ থেকে আদালতে জবাবও দাখিল করা হয়। কিন্তু এরপরেও প্রশাসন অবৈধ ভাবে কাউকে কিছু না জানিয়েই মসজিদটি ভেঙে ফেলে।”

https://platform.twitter.com/widgets.js

তিনি বলেন, ‘ আমাদের দাবি হল যেসমস্ত আধিকারিকরা এই অবৈধ কাজের সঙ্গে যুক্ত, তাঁদের চিহ্নিত করে কড়া শাস্তি দেওয়া হোক। পাশাপাশি মসজিদের ধ্বংসাবশেষ হটানোর কাজ বন্ধ করা হোক। এবং মসজিদের জায়গায় অন্য কিছু করার যেন চেষ্টা না করা হয়।” ওখানে মসজিদের পুনর্নির্মাণের দাবি জানিয়েছেন তিনি।