Press "Enter" to skip to content

এক ঐতিহাসিক মুহূর্তের মুখোমুখি দেশ, আজ ভারতবাসীকে বড় উপহার দিতে চলেছেন প্রধানমন্ত্রী

আত্মনির্ভর ও আধুনিক ভারত গঠনের স্বপ্নকে আরও এক ধাপ এগিয়ে নিয়ে যেতে চলেছেন । তিনি উদ্বোধন করতে চলেছেন ই- (e-RUPI) ডিজিটাল পেমেন্ট পরিষেবার।

ক্যাশলেস (Cashless) ও কন্টাক্টলেস পেমেন্ট(Contactless Payment)-র জন্য এক অভিনব ব্যবস্থা। এর ফলে আরও এক ধাপ এগিয়ে যাচ্ছে আমাদের দেশ। ই-রুপি পরিষেবার মাধ্যমে আরও সহজে বাড়িতে বসে অনায়াসে অনলাইনে আর্থিক লেনদেন করা যাবে। প্রধানমন্ত্রীর দফতর থেকে একটি বিবৃতি জারি করে বলা হয়েছে, “ই-রুপি পরিষেবার মাধ্যমে সরকার ও ব্যবহারকারীদের মধ্যে সংযোগ আরও ভালোভাবে ি পাবে। এই পরিষেবার মাধ্যমে সুরক্ষিতভাবে নির্দিষ্ট ব্যক্তির কাছে টাকা পৌঁছে যাবে।

২ অগস্ট প্রধানমন্ত্রী ভার্চুয়ালি এই নতুন পরিষেবার উদ্বোধন করবেন। ই-ভাউচার রূপে কাজ করা এই নতুন পেমেন্ট প্রযুক্তিতে কিউআর কোড (QR Code) ব্যবহার করে বা এসএমএস(SMS)-র সাহায্যে ভাউচারের মাধ্যমে আর্থিক লেনদেন করা যাবে।পরিষেবাদাতার সঙ্গে সরাসরি গ্রাহক বা ব্যবহারকারীর যোগাযোগ থাকবে সম্পূর্ণ ডিজিটাল পদ্ধতিতে এবং এই যোগাযোগ পদ্ধতিও অত্যন্ত সুরক্ষিত। আর্থিক লেনদেন শেষ হলে তবেই পরিষেবাদাতার হাতে নির্দিষ্ট অঙ্কের টাকা গিয়ে পৌঁছবে। প্রিপেইড পদ্ধতি হওয়ার দরুন এটি নির্দিষ্ট সময়ে‌ সঠিক অর্থ পৌছে দেবে বিনা বাধায়।

এই নতুন প্রযুক্তির মাধ্যমে ওয়ান-টাইম পেমেন্ট পদ্ধতিতে ই-রুপি ব্যবহারকারীকে কোনও কার্ড বা ডিজিটাল পেমেন্ট ব্যবহার করেই ভাউচার রিডিম করার সুযোগ রয়েছে।ন্যাশনাল পেমেন্টেস কর্পোরেশন অব ইন্ডিয়া জাতীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের আওতায় আর্থিক পরিষেবা দেওয়ার জন্য ইউপিআই এই প্ল্যাটফর্মে ই-রুপি প্ল্যাটফর্মটি বানিয়েছে।

প্রধানমন্ত্রীর দফতর সূত্রে আরও জানানো হয়েছে, সমাজসেবামূলক কাজে আর্থিক লেনদেনের ক্ষেত্রে এটি একটি যুগান্তকারী পদক্ষেপ। নারী ও শিশু কল্যাণ মন্ত্রকের অধীনে প্রয়োজনীয় ওষুধ ও পাঠানো, টিবি দূরীকরণ কর্মসূচি, আয়ুষ্মান ভারত প্রকল্প, সার উৎপাদনে ভর্তুকি দেওয়ার কাজেও ব্যবহার করা হবে এই পরিষেবা। এছাড়াও বেসরকারি সংস্থাগুলি নিজেদের কর্মীদের উন্নতির লক্ষ্যে বা সামাজিক দায়িত্বপালনের ক্ষেত্রেও এই ডিজিটাল পরিষেবা ব্যবহার করতে পারবে।