Press "Enter" to skip to content

এক রাতে তিনবার তিন জায়গায় ধর্ষণ ১৬ বছরের নাবালিকাকে! নারকীয় ঘটনার সাক্ষী রইল মুম্বাই

মুম্বাইঃের () রাজধানী মুম্বাই (Mumbai) থেকে চরম নৃশংসতার ঘটনা সামনে আসছে। সেখানে ১৬ বছর বয়সী এক নাবালিকাকে এক রাতে তিনটি আলাদা আলাদা জায়গায় ধর্ষণ আর করা হয়েছে। এই মামলায় এখনও পর্যন্ত চারজনকে করা হয়েছে, আর দুজনের খোঁজ চলছে।

পুলিশ অনুযায়ী, এই ঘটনা ৩১ মে আর ১ জুনের রাতে ঘটেছে। ১৬ বছরের নির্যাতিতার পরিবার মালাড ওয়েস্ট থানায় তাঁর নিখোঁজ হওয়ার ডায়েরি দায়ের করেছিল। নিখোঁজ নির্যাতিতা নাবালিকা থাকার কারণে পুলিশ তৎক্ষণাৎ অপহরণের মামলা দায়ের করে খোঁজ শুরু করে দেয়।

পরের দিন দুপুরে ওই নাবালিকা নিজেই বাড়িতে ফিরে যায়। সেই সময় তাঁকে আতঙ্কে দেখা যায়। এরপর নির্যাতিতার মা-বাবা তাঁকে জিজ্ঞাসা করে যে, তাঁর সঙ্গে কি হয়েছে? নাবালিকা নির্যাতিতা তখন কিছুই বলে না। এরপর মহিলা পুলিশ আধিকারিকের একটি টিম ওই নাবালিকার কাছে যায়। যদিও তখনও নাবালিকা কিছুই বলেনা। তবে কিছুক্ষণ পর সে মুখ খুলে সমস্ত কথা বলে।

পুলিশ জানায়, সোশ্যাল মিডিয়ায় ওই নাবালিকার কয়েকজন বন্ধু আছে, তাঁর মধ্যে একজন বার্থডে পার্টি রেখেছিল। সবাই মিলে একটি হোটেলের বাইরে জন্মদিনের সেলিব্ করে। এরপর তাঁদের মধ্যে দুজন ওই নাবালিকাকে গাড়িতে তুলে গণধর্ষণ করে। এরপর তাঁকে গাড়ি করে মালাডে অন্য একজন বন্ধুর বাড়িতে ছেড়ে দেয় তাঁরা। সেখানেও নাবালিকার বন্ধুরা তাঁকে গণধর্ষণ করে। এরপর নাবালিকা নিজের বাড়ি না গিয়ে অন্য একজন বন্ধুর বাড়িতে যায়, সেখানেও তাঁকে ধর্ষণ করা হয়।

নাবালিকার সঙ্গে ধর্ষণ আর গণধর্ষণ মামলায় চার অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাঁদের বয়স ১৮ থেকে ২৩ বছরের মধ্যে বলে জানা গিয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, সবাই ওই নাবালিকার ইনস্টাগ্রাম বন্ধু ছিল। পুলিশ জানায় আরও দুজনের খোঁজ চালানো হচ্ছে। তাঁরা ধর্ষণ করেনি, কিন্তু সেই সময় সেখানেই উপস্থিত ছিল।

সমস্ত অভিযুক্তকে পক্সো আইনের আওতায় গ্রেফতার করা হয়েছে। সবাইকে আদালতেও পেশ করা হয়েছে। আপাতত পুলিশ অভিযুক্তদের হেফাজতে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ চালাচ্ছে।