Press "Enter" to skip to content

এটা আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়ের একার লড়াই নয়, সবাই এক হন: মমতা ব্যানার্জী

আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে নিয়ে যে বিতর্ক তৈরি হয়েছিল তা এখন নতুন মোড় নিয়েছে। রাজ্যের মুখ্যসচিব পদ থেকে ইস্তফা দিয়েছেন আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। যারপর উনাকে মুখ্য উপদেষ্টা হিসেবে নিযুক্ত করেছেন মুখ্যমন্ত্রী । আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপর আইনশৃঙ্খলা ভঙ্গের অভি তোলা হয়েছিল। কেন্দ্র এই কারনে উপযুক্ত ব্যাবস্থা নেবে বলেও সামনে এসেছিল।

যারপর ঘটনায় নতুন মোড় আসে এবং আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় মুখ্যসচিব পদ থেকে ইস্তফা দেন। তবে স্বেচ্ছায় ইস্তফা নিলেও কেন্দ্র তার বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেবে বলে সূত্রের খবর। অন্যদিকে মমতা ব্যানার্জী বলেন, আমি এমন নির্দয় নির্মম প্রধানমন্ত্রী দেখিনি। মমতা ব্যানার্জী এও জানান যে এখন থেকে আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়কে মুখ্য উপদেষ্টা হিসেবে নিযুক্ত করা হলো। উনাকে মাসিক আড়া লক্ষ টাকা বেতন দেওয়া হবে বলেও জানা মমতা ব্যানার্জী।

২.৫০ লক্ষ টাকা বেতনের পাশাপাশি অন্যান্য সুযোগ সুবিধাও পাবেন আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। মমতা ব্যানার্জী বলেন, আমি দেশের সমস্ত বুদ্ধিজীবী, , অফিসারদের কাছে অনুরোধ করছি তারা সবাই আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়ের সাথে এক হয়ে লড়াই করুন এটা আলপন বন্দ্যোপাধ্যায়ের একার লড়াই নয়। কেন্দ্র প্রতিশোধমূলক আচরণ করছে বলেও অভিযোগ করেন মমতা ব্যানার্জী।

প্রসঙ্গত, সোমবার সকালে দিল্লীর নর্থ ব্লকে কর্মিবর্গের মন্ত্রকে রিপোর্ট করার কথা ছিল আলাপনের। কিন্তু তিনি সেখানে না গিয়ে নবান্নে যান। এরপর রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কেন্দ্রকে চিঠি পাঠিয়ে জানিয়ে দেন যে, আলাপনকে ছাড়া হচ্ছে না। মুখ্যমন্ত্রী আলাপনের বদলি প্রত্যাহার করার জন্যও আবেদন করেন কেন্দ্রের কাছে। কিন্তু মুখ্যমন্ত্রীর আর্জি করেনি কেন্দ্র।