Press "Enter" to skip to content

করোনাকালে ১৪ মাসে ১৫ কোটি ফ্রি মিল বিতরণ ইসকনের, ইয়াসে আশ্রয়হীনদেরও খাবার বিতরণ করবে সংস্থা


ঃ করোনাকালে ত্রাতার ভূমিকায় ‘ইন্টারন্যাশনাল সোসাইটি ফর কৃষ্ণা কনসাসনেস (ISKCON)।” শ্রী চৈতন্য ভক্ত এই সংগঠনের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে যে, ১৪ মাসে ১৫ কোটি ফ্রি মিল দিয়েছে তাঁরা। আর আগামী দিনেও তাঁরা মানুষের পাশে দাঁড়াতে এই কাজ জারি রাখবে।

ISKCON-এর ভাইস প্রেসিডেন্ট রাধারমন দাস বলেন, ‘কোভিডের কারণে ভারতবাসীর অবস্থা শোচনীয় হয়ে পড়েছে। আর এই কারণে তাঁরা ১৪ মাসে ১৫ কোটি ফ্রি মিল দিয়েছে। করোনা ত্রানের হিসেবেই তাঁরা এই মিল বিতরণ করেছে। ISKCON-এর ভাইস প্রেসিডেন্ট রাধারমন দাস ANI কে জানান, ‘করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে অনেক পরিবারের সব সদস্য মারণ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। আর এই দুঃসময়ে তাঁদের পক্ষে রান্না করে খাওয়া দুষ্কর। এদের পাশে দাঁড়িয়ে, আমরা এদের খাবার পাঠিয়েছি।” তিনি জানান, এছাড়াও আর প্রবীণ নাগরিকদেরও ের ব্যবস্থা করেছি আমরা।

বর্তমানে কলকাতায় ISKCON-এর তিনটি শাখা রয়েছে। সেই শাখা গুলো থেকেই বিনামূল্যে খাবার সরবরাহ করার বন্দোবস্ত করেছে সংগঠন। রাধারমন দাস জানিয়েছেন, গুরুসদয় রোড, নিউটাউন আর দমদমের শাখাগুলিতে রান্নার বন্দোবস্ত রয়েছে। সেখানে থেকে প্রতিদিন ১৫ হাজার ফ্রি মিল দেওয়া হচ্ছে। এছাড়াও ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের কথা মাথায় রেখে রাজ্যের উপকূলবর্তী এলাকাগুলোতে বিনামূল্যে খাবার বিতরণের উদ্যোগ নিয়েছে

বিপর্যয় চলে গেলেই মাঠে নামবে ইসকন। উপকূলবর্তী এলাকায় সাহায্যের বাড়িয়ে দেওয়া হবে সংগঠনের পক্ষ থেকে। রাধারমন দাস জানান, ইসকনের প্রতিটি কেন্দ্রে প্রতিদিন ৬০ হাজার ফ্রি মিল তৈরি করার ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। এরজন্য বিপুল পরিমাণে খাদ্যশস্য মজুত করা হয়েছে ইসকনের প্রতিটি কেন্দ্রে। ত্রাণের কাজে যাতে কোনও সমস্যা না হয়, সেটা দেখার নির্দেশ দিয়েছেন রাধারমন দাস।