Press "Enter" to skip to content

কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে পাকিস্তানকে সপাটে চর আমেরিকার, USA জানালো পাকিস্তানকে বিশ্বাস করা কঠিন!


আমেরিকা আরও একবার জম্মু কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে ভারতের তরফদারি করল। আমেরিকার একটি কংগ্রেশনাল রিপোর্টে বলা হয়েছে যে, পাকিস্তানি নেতৃত্বদের কাছে জম্মু কাশ্মীর নিয়ে ভারতের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে প্রতিক্রিয়া দেওয়ার বিকল্প সীমিত। অনেক বিশ্লেষকের মতে, ইসলামাবাদের সাথে জঙ্গি সংগঠন গুলোর গোপন সম্পর্ক থাকার কারণে এই ইস্যুতে পাকিস্তানের বিশ্বসনীয়তা অনেক কম।

কংগ্রেশনাল রিসার্চ সার্ভিস (CRS) ছয় মাসেরও কম সময়ে কাশ্মীর নিয়ে তাঁদের দ্বিতীয় রিপোর্টে জানায়, সম্প্রতি বছর গুলোতে সেনা অভিযানের মাধ্যমে পরিস্থিতি বদল করার ক্ষমতা কমেছে পাকিস্তানের, আর এর মানে হল পাকিস্তান এখন শুধু কূটনৈতিকের উপরেই ভরসা করতে পারে। কংগ্রেশনাল রিসার্চ সার্ভিস আমেরিকা কংগ্রেসের স্বাধীন তদন্তকারী সংগঠন, যেটা আমেরিকার সাংসদদের নিয়ে রিপোর্ট তৈরি করে।

CRS ১৩ জানুয়ারির ওই রিপোর্টে জানায় যে, পাঁচ আগস্টের পর থেকে পাকিস্তান কূটনৈতিক দিক থেকেও পিছিয়ে গেছে। শুধুমাত্র তুর্কি তাঁদের সমর্থন করেছে। আপনাদের জানিয়ে রাখি, পাঁচই আগস্ট জম্মু কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা তুলে নিয়ে কেন্দ্র শাসিত রাজ্যের দরজা দেওয়ার পর পাকিস্তান আর ভারতের সম্পর্কে আরও বেশি চির ধরেছে।

পাকিস্তান এই ইস্যুতে ভারতের বিরুদ্ধে মঞ্চে সমর্থন জোটানোর অনেক চেষ্টা করেছে, কিন্তু তাঁরা বারবার ব্যর্থ হয়েছে। ভারত স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছে যে, এই পদক্ষেপ সম্পূর্ণ ভারতের অভ্যন্তরীণ মামলা। CRS জানিয়েছে, অনেক বিশেষজ্ঞ অনুযায়ী, কাশ্মীর নিয়ে জঙ্গি সংগঠন গুলোকে লুকিয়ে লুকিয়ে সমর্থন করার পাকিস্তানের ইতিহাস দেখার পরেই তাঁদের উপর বিশ্বাস অনেক কমে গেছে।