Press "Enter" to skip to content

কোটি কোটি মানুষদের জন্য সুখবর, দেশবাসীর মুখে হাসি ফুটিয়ে বড় ঘোষণা কেন্দ্রের

[ad_1]

নয়া দিল্লিঃ পিএম আবাস যোজনার আওতায় থাকা ব্যক্তিদের জন্য সুখবর। কেন্দ্র ২০২৪ সাল পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রী গ্রামীণ আবাস যোজনা অব্যাহত রাখার অনুমোদন দিয়েছে। সরকার প্রধানমন্ত্রী গ্রামীণ আবাস যোজনা-এর অধীনে ২ কোটি ৯৫ লক্ষ্য পাকা বাড়ি প্রস্তুত করার লক্ষ্য নির্ধারণ করেছে। এর মধ্যে ২০২১ সালের নভেম্বরের মধ্যে ১ কোটি ৬৫ লক্ষ পাকা বাড়ি তৈরি করা হয়েছে। অবশিষ্ট পরিবারগুলিও যাতে তাদের পাকা বাড়ি তৈরি করতে পারে, তার জন্যই প্রধানমন্ত্রী গ্রামীণ আবাস যোজনা ২০২৪ সাল পর্যন্ত চালু রাখার অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এতে কোটি কোটি মানুষ উপকৃত হবেন।

সরকার প্রকাশিত তথ্য থেকে জানা যায়, ২০২১ সালের মার্চ পর্যন্ত, প্রধানমন্ত্রী গ্রামীণ আবাস যোজনায় ১.৯৭ লক্ষ কোটি টাকা ব্যয় করা হয়েছে। এর মধ্যে কেন্দ্রীয় সরকার খরচ করেছে ১,৪৪,১৬২ কোটি টাকা। অবশিষ্ট পাকা ঘর নির্মাণের জন্য, সরকার ২,১৭,২৫৭ কোটি টাকা মঞ্জুর করেছে। ২০২৪ সালের মধ্যে অবশিষ্ট কাজ শেষ করে ফেলাই কেন্দ্রীয় সরকারের প্রথম লক্ষ‍্য।

এই প্রকল্পে কেন্দ্রীয় সরকারের মোট ব্যয় হবে ১,৪৩,৭৮২ কোটি টাকা এবং এর মধ্যে ১৮,৬৭৬ কোটি টাকা NABARD-কে ঋণের সুদ পরিশোধের জন্য অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। এই প্রকল্পের পাশাপাশি। পার্বত্য রাজ্যগুলিতে কেন্দ্র এবং রাজ্যের মধ্যে ৯০ এবং ১০ শতাংশের ভাগাভাগির ভিত্তিতে অর্থ প্রদান করা হয়। বাকি রাজ্যগুলিতে ৬০ শতাংশ টাকা কেন্দ্র এবং ৪০ শতাংশ টাকা রাজ্য সরকার প্রদান করে। কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলিতে এটির জন্য ১০০ শতাংশ অর্থ ব্যয় করতে হয় কেন্দ্রকেই ।

প্রসঙ্গত, এই প্রকল্পের মধ্যে স্বচ্ছ ভারত মিশন-এর অধীনে, শৌচাগার নির্মাণের জন্য ১২,০০০ টাকা দেওয়া হয়। বাড়ি নির্মাণের পাশাপাশি এই অর্থ দেওয়া হয়। এই যোজনার পাশাপাশি প্রতিটি পরিবারের জন্য জল, বিদ্যুৎ এবং টয়লেট দেওয়ার সংকল্পও পূর্ণ করতে হয়।

[ad_2]