Press "Enter" to skip to content

গিলগিট-বাল্টিস্তানে নির্বাচন করালে পরিণাম ভুগতে হবে! ইমরান খানকে হুমকি পাকিস্তানের বিরোধী দল গুলোর


নয়া ঃ পাকিস্তানের (Pakistan) ইমরান খান () সরকারের গিলগিট-বাল্টিস্তানে করানোর সিদ্ধান্ত নিয়ে পাকিস্তানে বিরোধিতা শুরু হয়েছে। ইমরান খান জানিয়েছেন, গিলগিট-বাল্টিস্তানে নির্বাচন হলে সেখানকার মানুষেরা সাংবিধানিক অধিকার পাবেন। যদিও পাকিস্তানের দল গুলো ইমরান খানের এই তত্ত্ব মানতে নারাজ, আর তাঁরা একজোট হয়ে এই নির্বাচনের বিরোধিতায় সরব হয়েছে।

পাকিস্তানের বিরোধী দল পিএমএল – নওয়াজ, মুসলিম কনফারেন্স, পিপলস পার্টি অফ পাকিস্তান, জামাত-এ-ইসলামি, আজাদ কাশ্মীর পিপলস পার্টি আর অন্যান্য রাজনৈতিক দল গুলো স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছে যে, গিলগিট-বাল্টিস্তানে নির্বাচন করানো হলে পরিণাম ভুগতে হবে।

বিরোধী দল জানিয়েছে, এই দুই অঞ্চলকে পাকিস্তানের প্রান্ত বলা হলে জম্মু কাশ্মীরের বিতর্কিত অঞ্চলের জন্য বিনাশকারী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। জানিয়ে দিই, ইমরান খান সরকারকে সংখ্যাগরিষ্ঠতা প্রমাণ করার জন্য দুই তৃতীয়াংশ আসনের দরকার। এই ইস্যু নিয়ে পাকিস্তানি সেনার প্রধান জেনারেল কমর জাভেদ বাজওয়া আর প্রধান লেফেটেন্যান্ট ফৈজ হামিদ গত মাসে ১৫ বিরোধী নেতার সাথে বৈঠক করেন।

এই দুই আধিকারিক বিরোধী দল গুলোকে ইমরান খানের সিদ্ধান্তকে সমর্থন করার জন্য বলেছে, যদিও বিরোধী দল পিএলএল- নওয়াজ নিজেদের দুই সদস্যকে সেনার সদস্যদের সাথে সাক্ষাৎ না করার ফরমান জারি করে। আরেকদিকে, সুইজারল্যান্ডের জেনেভেয় কাশ্মীর পিপলস ন্যাশানাল পার্টির সভাপতি সউকত আলী কাশ্মীর বলেন, এরকম করার জন্য চীন পাকিস্তানি সেনার উপর চাপ দিচ্ছে।