Press "Enter" to skip to content

গোলামি থেকে আজাদ হল আফগানিস্তান! তালিবানকে সমর্থন করে বললেন ইমরান খান


নয়া ঃ আফগানিস্তানে জনতার সরকারকে উপড়ে ফেলা আর বন্দুকের দমে ক্ষমতা দখল করা তালিবানকে , চিন আর ইরান সমর্থন করেছে। পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান এই বিষয়ে বড় বয়ানও দিয়েছেন। উনি তালিবানকে ক্ষমতায় আসার জন্য স্বাগত জানিয়ে বলেছেন, ‘দাসত্বর শৃঙ্খল ভেঙেছে।”

আফগানিস্তানকে আরও একবার অন্ধকারের গর্তে ঠেলে দেওয়া তালিবানকে চিন, ইরান আর পাকিস্তানের সমর্থন দেওয়ার পর মহাশক্তিধর দেশগুলির জন্য আশঙ্কার মেঘ ঘনাচ্ছে। চিন আশা জাহির করেছে যে, আফগানিস্তানে ের শাসন স্থায়ী হবে। অন্যদিকে ইরান জানিয়েছে যে, আমেরিকার হারের কারণে স্থায়ী শান্তির আশা দেখা যাচ্ছে।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান বলেছেন, ‘যখন আপনারা অন্য জনার সংস্কৃতি আপন করে নেন, তখন আপনি মানসিক দিক থেকে দাস হয়ে যান। এটা বাস্তবিক দাসত্বর থেকেও খারাপ। সাংস্কৃতিক দাসত্বর শিকল ছেঁড়া সহজ হয় না। আফগানিস্তানে বর্তমানে যা হচ্ছে, তা দাসত্বের শিকল ছেঁড়ার মতো।”

পাকিস্তানের বিদেশ মন্ত্রী বলেছেন, ‘আফগানিস্তানে রাজনৈতিক স্থিরতা কায়েম করার জন্য পাকিস্তান গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে।” কুরেশি বলেন, ‘আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের উচিত আফগানিস্তানের সঙ্গে সম্পর্ক রাখা। পাকিস্তান নিজেদের অবস্থান নিয়ে স্পষ্ট। আমাদের মতে শুধুমাত্র কথাবার্তার মাধ্যমে রাজনৈতিক সমস্যার সমাধান হবে। আমরা ওই দেশে লাগাতার গৃহযুদ্ধ চাই না।”