Press "Enter" to skip to content

চীনকে উচিৎ শিক্ষা দিলো আমেরিকা, বাইডেনের সিদ্ধান্তে বিশ্বের সামনে মুখ পুড়ল জিনপিংয়ের


নয়া দিল্লিঃ গণতন্ত্র ইস্যুতে আমেরিকার (United State) আরও একবার কমিউনিস্ট দেশগুলোর সঙ্গে হাতাহাতি করার মুডে রয়েছে। ৯ ও ১০ ডিসেম্বর আমেরিকায় হতে চলা ভার্চুয়ালি সম্মেলনের জন্য আমেরিকার রাষ্ট্রপতি জো বাইডেন (Joe Biden) যেই যেই দেশগুলোকে আমন্ত্রণ পাঠিয়েছেন, তাঁদের মধ্যে কমিউনিস্ট দেশ চীন () আর (Russia) নেই। অন্যদিকে, চীনকে ঝটকা দিতে আমেরিকার তাইওয়ানকেও সেই সম্মেলনে আমন্ত্রণ জানিয়েছে।

মার্কিন প্রেসিডেন্টের এই সিদ্ধান্তে চীন আর আমেরিকার মধ্যে চলা উত্তেজনা যে আরও বাড়বে, সেটা আর বলার অপেক্ষা রাখে না। উল্লেখ্য, তাইওয়ান ইস্যু নিয়ে চীন আর আমেরিকা বিগত কিছুদিন ধরেই একে অপরকে আক্রমণ করছে। আর এর মধ্যে আমেরিকার এই পদক্ষেপ চীনের প্রতি তাঁদের মনোভাব স্পষ্ট করে দিয়েছে।

আমেরিকার তরফ থেকে গণতন্ত্র নিয়ে আয়োজন করা সেমিনারের জন্য মোট ১১০ টি দেশকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। আমেরিকার মন্ত্রালয়ের তরফ থেকে জারি ওই তালিকায় চীন আর রাশিয়ার নাম নেই। ওই তালিকায় দক্ষিণ এশিয়ার দেশ , বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কাকেও এই তালিকা থেকে বাইরে রাখা হয়েছে। অন্যদিকে তুর্কিকেও এই তালিকা থেকে বাইরে রাখা হয়েছে।

file

আমেরিকার তরফ থেকে এই ভার্চুয়াল সম্মেলনে অংশ নেওয়ার জন্য ভারতকেও আমন্ত্রণ পাঠানো হয়েছে। অন্যদিকে আর ইরাককেও আমন্ত্রণ পাঠিয়েছে আমেরিকার রাষ্ট্রপতি জো বাইডেন। শাসিত আফগানিস্তানকেও আমেরিকা আমন্ত্রণ পাঠায় নি। এটা তালিবান সরকারের কাছে বড়সড় একটি ঝটকা। আফগানিস্তান দখলের পর থেকেই তালিবান বৈশ্বিক স্বীকৃতি পাওয়ার জন্য জোরকদমে প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে, কিন্তু আমেরিকা তাঁদের এই প্রচেষ্টাকে গুরুত্ব দিতে নারাজ।