Press "Enter" to skip to content

তানিশকের বিতর্কিত বিজ্ঞাপন নিয়ে এমন ট্যুইট করলেন জাভেদ আখতার, হয়ে গেলেন ট্রল

নয়া দিল্লীঃ জুয়েলারি ব্র্যান্ড () সোশ্যাল মিডিয়ায় জনতার রোষের মুখে পড়ে আর বয়কট অভিযানের পর মঙ্গলবার নিজেদের Inter-faith family বিজ্ঞাপন সরিয়ে নেয়। ট্যুইটার সমেত বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মে এখনো এই বিজ্ঞাপন নিয়ে চর্চা জারি আছে। একদিকে কিছু মানুষ এই বিজ্ঞাপনটিকে লাভ জেহাদের প্রোমোশন হিসেবে দেখেছেন, তেমন আরেকদিকে অনেকেই এই বিজ্ঞাপনে আসল ধর্মনিরপেক্ষতা খুঁজে পেয়েছেন। অনেকেই আবার প্রশ্ন করেছেন যে, এই বিজ্ঞাপনটাই ঠিক উল্টো ভাবে দেখানোর সাহস রাখে কি? এবার বিখ্যাত গীতিকার () এই বিষয়ে এমন ট্যুইট করলেন, যার কারণে উনি ট্রলার্সদের নিশানায় চলে আসেন।

উল্লেখ্য, একজন ইউজার এই বিজ্ঞাপনের ছবি শেয়ার করে ট্যুইট করে লেখেন, ‘তানিশকের সেই বিজ্ঞাপনঃ আপনি যখন একটি সত্যবাদী আলোচনা করবে না বলে জানিয়ে দেন, তখন এরকম প্রতিক্রিয়া পান আপনি যা বেশ আশ্চর্যজনক হয়। শুধু রাগ করলেই কোনও কিছু হবে না, কাঠামোগত সহায়তা প্রাপ্তি এবং তার সমাধান করা উচিত।”

এই ট্যুইটের জবাবে জাভেদ আখতার লেখেন, ‘ চলচ্চিত্র, বিজ্ঞাপন বা বাস্তব জীবনের সব জায়গার একটি ইন্টার রিলিজিয়াস বিবাহের সময়ে কিছু লোকের উপস্থিতি সমস্যা সৃষ্টি করে, সেখানে সবসময় কন্যা পক্ষের আক্রোশ সামনে আসে। এই আক্রোশ এমন ভাবে দেখানো হয় যে, মহিলারা যেন তাঁদের নিজেদের সম্পত্তি। বিক্ষুব্ধ মানুষেরা বর আর বরের বাড়ির মানুষকে এমন ভাবে পেশ করেন, যেন ওঁরা কোনও গ্রামের পশু চোর।”

এই ট্যুইটের পর জাভেদ আখতারকে মানুষের বিক্ষোভের মুখে পড়তে হয়। অনেকেই ওনাকে প্রশ্ন করছেন যে যখন লাভ জেহাদের শিকার হওয়া হিন্দু মহিলাদের করুণ পরিণতি হয়, তখন তিনি কেনও কোনও ট্যুইট করেন না? আবার ওনাকে অনেকেই বলছেন যে, এই বিষয়ে আপনার মুখ না খোলাই উচিৎ।