Press "Enter" to skip to content

নিজেকে আদিত্য বলে হিন্দু মেয়েদের প্রেম জালে ফাঁসিয়ে বিয়ে করত ৫ সন্তানের বাবা আবিদ! পড়ল ধরা

লখনউঃের পুলিশ এমন এক ব্যক্তিকে করেছে, যে নিজেকে ইন্সপেক্টর বলে যুবতীদের প্রেমের জালে ফাঁসিয়ে বিয়ে করত। শুধু তাই নয়, অভিযুক্ত আবিদ হাবারি নিজেকে ের ইন্সপেক্টর আদিত্য সিং বলে পরিচয় দিত আর বিয়ের পর যুবতীদের পরিবর্তন করানোর জন্য চাপ দিত।

আবিদ বিবাহিত আর পাঁচ সন্তানের বাবা। এরপরেও সে যুবতীদের নিজের প্রেমের জালে ফাঁসিয়ে আরও দুটি বিয়ে করে। আবিদ উত্তর প্রদেশের আজমগড় জেলার বাসিন্দা। পুলিশ তাঁকে ইন্দিরা নগর এলাকা থেকে গ্রেফতার করেছে। দুটি বিয়ের পর আবিদ তৃতীয় বিয়ে অন্য ধর্মের একটি মেয়ের সঙ্গে এই বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে করেছিল।

আবিদ লখনউয়ের ইন্দিরা নগরের সেক্টর ৯-এর এক যুবতীকে প্রথমে নিজের প্রেমের জালে ফাঁসায়। এরপর যুবতীর শারীরিক শোষণ করে। যখন ওই যুবতী বিয়ে করার জন্য আবিদকে চাপ দেওয়া শুরু করে, তখন আবিদ নিজের আসল পরিচয় দিয়ে যুবতীকে বিয়ে করে। বিয়ের পর যুবতীর ধর্ম পরিবর্তন করে তাঁর নাম আয়েশা রাখে।

কিন্তু যুবতী যখন জানতে পারেন যে, আবিদ ফেব্রুয়ারি মাসে আরও একটি মেয়েকে নিজের পরিচয় গোপন করে বিয়ে করেছে, তখন তাঁর মাথায় আকাশ ভেঙে পড়ে। এরপর ওই যুবতী আবিদের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ দায়ের করে ইন্দিরা নগর থানায়। এছাড়াও ধর্ষণ আর লাভ ের অভিযোগ তুলে আবিদের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের হয়েছে।

পুলিশ অভিযুক্ত আবিদকে গ্রেফতার করে নিয়েছে। পুলিশ অভিযুক্তর কাছ থেকে আদিত্য সিং নামে একটি উদ্ধার করেছে।