Press "Enter" to skip to content

পশ্চিমবঙ্গ শান্তির রাজ্য, উত্তরপ্রদেশ টেরোরিস্ট রাজ্য: ফিরহাদ হাকিম


ের মুর্শিদাবাদ থেকে ৬ জন জঙ্গি গ্রেফতার হওয়ার পর রাজ্যে নতুন বিতর্ক শুরু হয়েছে। ে জঙ্গি ধরা পড়ছে এই ইস্যুতে অনেকে রাজ্য সরকারকে আক্রমন করেছেন। সোশ্যাল মিডিয়ায় অনেকে লিখেছেন যে ধীরে ধীরে কাশ্মীর হওয়ার দিকে এগোচ্ছে। আবার কেউ লিখেছেন ে জঙ্গি উৎপাদনে কেরলের থেকে এগিয়ে। এই ধরনের নানা মন্তব্য জুড়ে যখন সোশ্যাল মিডিয়া উত্তাল তখন বাংলার রাজনীতিও এর বাইরে থাকতে পারেনি।

পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল জগদীপ রাজ্যে গণতন্ত্র বিপন্ন হতে পারে বলে মন্তব্য করেছেন। রাজ্যপাল বলেছেন, পশ্চিমবঙ্গ বোমা তৈরির কারখানা পরিণত হয়েছে। পুলিশ ও মমতা ব্যানার্জী শুধু বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলিকে আটকাতে ব্যাস্ত বলেও আক্রমন করেছেন রাজ্যপাল। NIA মোট ৯ জন জঙ্গিকে গ্রেফতার করেছে যার মধ্যে ৬ জন পশ্চিবঙ্গের বাসিন্দা। যা নিয়ে রাজ্যের পরিস্থিতির উপর চিন্তা ব্যাক্ত করেছেন রাজ্যপাল।

এখন এই ইস্যুতে রাজ্যপালের উপর পাল্টা রাজনৈতিক আক্রমন করেছেন । বাংলা শান্তির রাজ্য এবং এই রাজ্যে শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রেখে কাজকর্ম হয় বলে মন্তব্য করেন তিনি। বলেন, রাজ্য যদি জঙ্গিদের আঁতুরঘর হয় তাহলে রাজ্যপালের আগে ইস্তফা দেওয়া উচিত। বলেন- এই রাজ্য শান্তির রাজ্য, বাংলার মানুষকে অপমান করার অধিকার রাজ্যপালের নেই।

ফিরহাদ হাকিম মিডিয়াকর্মীদের মুখোমুখি হয়ে বলেন, যে রাজ্যে ৮ জন পুলিশকর্মীকে গুলি করে হত্যা করা হয় সেটা সন্ত্রাসবাদীর আঁতুরঘর হয় নাকি যেখানে সুষ্ঠুভাবে সবকিছু হয় সেটা হয়? পশ্চিমবঙ্গে আইন শৃঙ্খলা আছে এবং সব নিয়ম মেনে অপরাধীকে ধরে আদালতে নিয়ে যাওয়া হয়। অন্যদিকে উত্তরপ্রদেশে অপরাধীকে ধরে আনতে আনতে এনকাউন্টার করে দেওয়া হয় বলেও মন্তব্য করেন ফিরহাদ হাকিম।