Press "Enter" to skip to content

পেট্রোল-ডিজেলের উপর আর নির্ভর করবে না ভারত, খরচ কমাতে বড় পদক্ষেপের পথে কেন্দ্র

[ad_1]

নয়া দিল্লিঃ পেট্রোল ডিজেলের উর্দ্ধমুখী মূল্যবৃদ্ধি কিছুটা হলেও কমিয়েছে কেন্দ্র সরকার। তবে এখনও কিছু কিছু রাজ্য সেই পথে হাঁটা শুরু করেনি। তবে কেন্দ্র সরকার যেটুকু কমিয়েছে, তাও যে খুব বেশি তা কিন্তু নয়। এখনও মানুষের মধ্যে পেট্রোপণ্যের দাম নিয়ে দুশ্চিন্তা রয়েছে। তবে সেই চিন্তার মুশকিল আসান করলেন সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক মন্ত্রী নিতিন গডকড়ী (Nitin Gadkari)।

সোমবার একটি অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে তিনি বলেন, আগামী ২-৩ দিনের মধ্যে এমন একটি ফাইলে স্বাক্ষর করতে চলেছি, যেখানে চুক্তি করা হচ্ছে আগামীতে যাতে ১০০ শতাংশ গাড়ির জন্যই যেন বায়ো-ইথানলে (bio-ethanol) চালিত ইঞ্জিন তৈরি করা হয়। আর এই ব্যবস্থার ফলে ইথানলের চাহিদা আরও ৫ গুণ বেড়ে যাবে। অর্থাৎ এই ফ্লেক্স ফুয়েল সব ধরণের যানবাহনের ক্ষেত্রেই প্রযোজ্য হবে। অটো কোম্পানি গুলোকেও এই ফ্লেক্স ফুয়েল ইঞ্জিন ব্যবহার করার নির্দেশ দিতে বলেছেন নিতিন গডকড়ী।

বর্তমানে সময়ে ভারতের মধ্যে পুনেতেই শুধুমাত্র তিনটি ইথানল স্টেশন রয়েছে। বিশেষজ্ঞদের মতে, পুনেতে পাইলট প্রকল্পের অধীনে কিছু ইথানল জ্বালানি ভিত্তিক গাড়ি চালানো হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী চলতি বছর ৫ ই জুন তিনটি ই-১০০ ইথানল ডিসপেনসিং স্টেশন চালুও করেছিলেন।

প্রসঙ্গত, সবচেয়ে বড় আখ উৎপাদনকারী দেশ হওয়ায়, ব্রাজিলে প্রচুর পরিমাণে ইথানল উৎপন্ন হয়। সেই কারণে প্রায় ৪০ বছর আগে থাকতেই তেলের বদলে ইথানল নিয়ে কাজ শুরু করে দিয়েছে ব্রাজিল সরকার। এবার ভারতেই সেই পদ্ধতি প্রয়োগের পরিকল্পনা চলছে।

[ad_2]