Press "Enter" to skip to content

ফেসবুক লাইভে এসে বিপাকে মদন মিত্র, তৃণমূল নেত্রীর কাছে খেলেন জোর ধমক


কলকাতাঃগতকাল রাত সাড়ে দশটা াদ লাইভে এসেছিলেন কামারহাটির (ALL India Trinamool Congress) বিধায়ক মদন মিত্র (Madan Mitra)। লাইভে এসে তিনি বিস্ফোরক মন্তব্য করে কামারহাটি পুর প্রশাসক হওয়ার দাবি করেন। এমনকি তিনি এরজন্য বিধায়ক পদও ছাড়তে রাজি। যদিও, পরে বিপত্তি বুঝে সেই ভিডিওটি ডিলিট করে দিয়েছিলেন মদনবাবু। কিন্তু ডিলিট করলেও নেত্রীর নজর এড়িয়ে যায়নি বিষয়টা। আর সেই কারণে আজ সাংগঠনিক বৈঠকে মদনকে জোর ধমক দিলেন তৃণমূল নেত্রী বন্দ্যোপাধ্যায়।

এদিনের তৃণমূল বৈঠকে তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কামারহাটির বিধায়ক মদন মিত্রকে সাফ জানিয়ে দেন যে, ‘এভাবে সামাজিক মাধ্যমে এসে যখন তখন সবকিছু বলা যায় না।” যদিও, বৈঠক শেষ হওয়ার পর মদন মিত্র দাবি করেন যে, ওনাকে নেত্রী আরও ভালো করে ফেসবুক লাইভ করতে বলেছেন। মদন মিত্র বলেন, ‘দলনেত্রী আমাকে বলেছেন, তোমাকে সবাই ভালবাসে। আমাদের সুবিধার জন্য তুমি তোমার ফেসবুক লাইভগুলো আরও সুন্দর ভাবে করো।”

উল্লেখ্য, গতকালের ফেসবুক লাইভে মদন মিত্র কামারহাটি কেন্দ্র থেকে পদত্যাগ করার ইচ্ছে প্রকাশ করেন। মদন মিত্র বলেন, ‘কামারহাটি থেকে শুরু করে বরানগর এবং হালিশহরের চেহারা পাল্টে দেব। একটা সুযোগ করে দিন না। আমি তো কিছু চাইছি না, এটাই তো চাইছি। আমি জানি লোকে বলবে দেরীতে চাইছে। মুডে চাইছে। আই ডোন্ট কেয়ার। রোম যখন পুড়ছিল তখন নিরো মদ খেয়েছিলেন কি না জানিনা। আমি আপনার কাছে চাইছি আপনি কামারহাটির প্রশাসনের দায়িত্ব আমাকে দিন। আমি কামারহাটি অ্যাসেম্বলি থেকে পদত্যাগ করব। আপনি অন্য কাউকে দায়িত্ব দিন, সে জিতে আসুক।”

মদন মিত্রের সেই লাইভ মুহূর্তের মধ্যে ভাইরাল হয়ে যায়। যদিও, মদনবাবু বেগতিক বুঝে সেই লাইভ আগেই ডিলিট করে দেন। আজকে মদনবাবুর সেই লাইভের খবর প্রকাশ্যে আসতেই তৃণমূল নেত্রী ওনাকে সাংগঠনিক বৈঠকে কার্যত সাবধান করে দেন।