Press "Enter" to skip to content

বন্ধু মোদীর পর ট্রাম্পও গোটা দেশে নিষিদ্ধ করল চীনা অ্যাপ টিকটক আর উই চ্যাট


নয়া দিল্লীঃ ভারতে নিষিদ্ধ হওয়ার পর ের () জন্য আরও একটি বড় দুঃসংবাদ। এবার আমেরিকাও এই চাইনিজ অ্যাপে নিষেধাজ্ঞা জারি করার প্রস্তুতি নিয়ে নিল। আমেরিকার () রাষ্ট্রপতি () এর আদেশ অনুযায়ী, আমেরিকায় আগামী রবিবারই এই চাইনিজ অ্যাপ সম্পূর্ণ ভাবে নিষিদ্ধ হয়ে যাবে। এর সাথে সাথে উই চ্যাটেও নিষেধাজ্ঞা জারি করছে ট্রাম্প সরকার। টিকটক আর We Chat এ রবিবার থেকেই নিষেধাজ্ঞা জারি হয়ে যাবে। জানিয়ে দিই, ভারতে প্রথমেই টিকটক সমেত ২২৪ টি চাইনা অ্যাপ নিষিদ্ধ হয়ে গিয়েছে।

আপনাদের জানিয়ে দিই, এমাসের দুই তারিখে চীনের বিরুদ্ধে বড়সড় পদক্ষেপ নিয়ে মোদী সরকার পাবজি সমেত ১১৮ টি চাইনিজ অ্যাপ ভারতে নিষিদ্ধ করে দেয়। এর আগে ১৫ ই জুন গালওয়ানে দুই পক্ষের হওয়া সংঘর্ষের পর ২৯ জুন মোদী সরকার টিকটক সমেত ৫৯ টি চাইনিজ অ্যাপ নিষিদ্ধ করে দেয়। এরপর ২৮ জুলাই আরও ৪৭ টি অ্যাপস বন্ধ করে মোদী সরকার। মোদী সরকার এখনো পর্যন্ত মোট ২২৪ টি চাইনিজ অ্যাপ নিষিদ্ধ করে ভারতে।

লাদাখ সীমান্তে চলা উত্তেজনার কারণে কেন্দ্র সরকার চীনকে ঝটকা দিতে একের পর কড়া সিদ্ধান্ত নিচ্ছে। চীনা কোম্পানির সাথে সমস্ত প্রোজেক্ট রদ করা থেকে শুরু করে চীনের একের পর এক অ্যাপ ব্যানের ফলে গভীর চিন্তায় বেজিং। আরেকদিকে আত্মনির্ভর ভারত গড়ার ডাক দিয়ে দেশে স্বদেশী প্রযুক্তিতে খেলনা তৈরি করে চীনকে আরও গভীর সঙ্কটে ফেলতে চলেছে মোদী সরকার।

জানিয়ে দিই, বিশ্বের বাজারে চীনা খেলনা সিংহ ভাগ মার্কেট দখল করে রেখেছে। সেই যায়গায় বিকল্প হিসেবে যদি ভারত অথবা অন্য কোনও দেশের খেলনা বাজারে উঠে আসে, তাহলে জিনপিংয়ের চুল ছেঁড়ার উপক্রম হয়ে দাঁড়াবে। একদিকে চীনের উপর গোটা বিশ্বে করোনা ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগ করেছে অনেক তাবড় তাবড় দেশ। আরেকদিকে, চীনকে কুপোকাত করতে ভারত, জাপান, অস্ট্রেলিয়া সমেত বিশ্বের অনেক কয়েকটি দেশই হাত মেলাচ্ছে। এরফলে চীনের দুর্দিন যে আসন্ন সেটা বলার সময় রাখেনা।