Press "Enter" to skip to content

বাংলা সহ একাধিক রাজ্যের কাছে ২০ হাজার কোটি টাকা পায় কোল ইন্ডিয়া, আদায়ের পথে নামল কেন্দ্র

নয়া দিল্লিঃের বিভিন্ন বিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্র (Power Plants) বর্তমানে কয়লার (Coal) অভাবে ধুঁকছে। আর এই কারণে দেশজুড়ে বিদ্যুত সংকট (Power Cut) বাড়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। আর এরই মধ্যে কেন্দ্র সরকার জানিয়েছে যে, রাজ্যগুলোর কাছে কোল ইন্ডিয়ার (Coal India) প্রায় ২০ হাজার কোটি টাকার বকেয়া রয়েছে। প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী কর্ণাটক, মধ্য প্রদেশ, মহারাষ্ট্র, , পশ্চিমবঙ্গ সবথেকে বড় ডিফল্টার রূপে সামনে এসেছে। কয়লা মন্ত্রক উত্তর প্রদেশ, মহারাষ্ট্র, আর রাজস্থানকে চিঠি লিখে তাঁদের বকেয়া মেটানোর কথা বলেছে।

কয়লা সংকটের মধ্যে এও শোনা যাচ্ছে যে, কয়লা মন্ত্রক এবছরের ফেব্রুয়ারি মাসে চিঠি লিখে কয়লার ভাণ্ডার মজুত রাখা আর বরাদ্দকৃত কয়লা মসৃণভাবে উত্তোলন করতে বলা হয়েছিল। এও বলা হয়েছিল যে, বিপুল টাকা বকেয়া থাকার পরেও রাজ্যগুলোকে কয়লার বণ্টন জারি রাখা হবে।

কয়লা মন্ত্রক জানিয়েছে যে, ঝাড়খণ্ড, রাজস্থান আর পশ্চিমবঙ্গের মতো রাজ্যে কয়লা খনি আছে ঠিকই, কিন্তু সেখানে হয় একদমই খনন করা হয়নি, না হলে খুব কম কয়লা তোলা হয়েছে। কয়লা মন্ত্রক অনুযায়ী, মহারাষ্ট্রের উপর ৩ হাজার ১৭৬ কোটি টাকা বকেয়া রয়েছে। উত্তর প্রদেশের উপর ২ হাজার ৭৪৩ কোটি টাকার বকেয়া। পশ্চিমবঙ্গের উপর ১ হাজার ৯৫৮ কোটি টাকার বকেয়া। আর তামিলনাড়ুর উপর ১ হাজার ২৮১ কোটি টাকা এবং রাজস্থানের উপর ৭৭৪ কোটি টাকা বকেয়া।

অন্যদিকে, কেন্দ্রীয় কয়লা মন্ত্রী প্রহ্লাদ জোশি বলেছেন, মঙ্গলবার তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রগুলোতে কয়লার সরবরাহ ২০ লক্ষ টন পার করেছে। উনি দাবি করেছেন যে, বিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্রগুলোতে কয়লার সরবরাহ বাড়ানো হয়েছে। কেন্দ্র অভিযোগ করে বলেছে, রাজ্যগুলো একদিকে যেমন কয়লার খনন ঠিক ভাবে করেনি, তেমনই কোল ইন্ডিয়ার থেকেও ঠিকমতো কয়লা নেয়নি, আর এই কারণেই এই সংকটের পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে।