Press "Enter" to skip to content

বামেদের দুর্গ কেরলে বিজেপির হয়ে কড়া টক্কর দিচ্ছে অসমের মেয়ে, প্রথমবার টিকিট পেয়ে জয়ের জন্য আত্মবিশ্বাসী

কন্নুড়ঃ বামেদের (Cpim) ঘাঁটি কেরলে (Kerala) আগামী মাসে স্থানীয় পঞ্চায়েত নির্বাচন হতে চলেছে। স্থানীয় পঞ্চায়েত নির্বাচন ৮, ১০ আর ১৪ ডিসেম্বর তিন দফায় হবে। রাজ্যের এক বরিষ্ঠ আধিকারিক এই কথা জানান। শোনা যাচ্ছে যে, যদি করোনা মহামারী না থাকত তাহলে ১১ ই নভেম্বরের মধ্যে নির্বাচন হয়ে যেত।

সমস্ত দলই নির্বাচনী প্রচারের প্রস্তুতি ব্যস্ত। এই নির্বাচনে বিজেপি মুন্মি শাজী (মুন্মি গগৈ) কে প্রার্থী করেছে। মুন্মি অসমের লক্ষ্মীপুরের বাসিন্দা। উনি কেরলের কন্নুর এর ইরিট্টি পঞ্চায়েতের এক যুবকের সাথে বিয়ে করেছেন। এবার তিনি বিজেপির টিকিটে স্থানীয় পঞ্চায়েত নির্বাচনে লড়ছেন।

মুন্মি জানান, তিনি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর প্রকল্প গুলোকে গ্রামের গরিব মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়ার জন্য নির্বাচনে লড়ছেন। উনি সংবাদ সংস্থা ANI এর সাথে কথা বলার সময় বলেন, ‘পঞ্চায়েতের মানুষের আমাকে নিজের পরিবারের সদস্য হিসেবে স্বীকার করেহে, স্থানীয় মানুষেরাও আমি স্বীকার করেছে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী আমাদের জন্য অনেক যোজনা বানিয়েছেন, সেগুলোর মধ্যে কয়েকটি যোজনাই গরিব মানুষের বাড়ি পর্যন্ত পৌঁছেছে। আমি বিজেপির প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে লড়ছি আর এই প্রকল্প গুলোকে আমি আমার গ্রামের প্রতিটি গরিব পরিবারের কাছে পৌঁছে দেব।”

https://platform.twitter.com/widgets.js

মুন্মি বলেন, অসমের লক্ষ্মীপুরে আমার পরিবার কংগ্রেসের সমরথক, কিন্তু আমি বিজেপির টিকিটে নির্বাচনে লড়ছি। আমার স্বামী কন্নুর থেকে বিজেপির কর্মী। আর স্থানীয় আরএসএস শাখায় আমি যুক্ত। আমি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর প্রকল্প কেরলের গরিব পরিবারের কাছে পৌঁছে দিতে চাই। আমি ডর-টু-ডোর অভিযানে দেখেছি সবাই আমাকে নিজের বাড়ির বৌ হিসেবে স্বীকার করেছে, আমি এই সাত বছর ভালো মালায়ালাম শিখেছি আর এটি আমাকে ভোটারদের সাথে মিলে মিশে যেতে সাহাজ্য করেছে।