Press "Enter" to skip to content

বাম শাসিত কেরলে তালিবানি স্টাইলে RSS কর্মীকে নৃশংস ভাবে কুপিয়ে হত্যা

কেরলে (Kerala) আরএসএস কর্মীকে নৃশংস ভাবে খুনের (RSS Worker Murder) ঘটনায় উত্তাপ ছড়িয়েছে। প্রকাশ্য দিবালোকে ঘটে যাওয়া এই অমানবিক ঘটনার পর এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। সংগঠন এই ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছে। এই ঘটনা কেরলের কোঝিকোড়ে RSS দফতরের বাইরে হওয়া বোমাবাজির কয়েক ঘণ্টা পরে ঘটেছে।

RSS কর্মীর খুনের পর অভিযোগ করে বলেছে, কেরলে অনেক দশক ধরেই হিন্দু সংগঠনের কর্মীদের এভাবেই খুন করা হচ্ছে। প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী, মৃত আরএসএস কর্মীর শরীরে ৫০টি ধারালো অস্ত্রের কোপ দেখা গিয়েছে। সঞ্জিত নামের ওই RSS কর্মীর খুনের ঘটনায় SDPI-র কর্মীরা জড়িত থাকতে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করা হয়েছে। বিজেপি অভিযোগ করে বলেছে যে, রাজনৈতিক বিরোধিতার কারণে SDPI-র কর্মীরা সঞ্জিতকে তালিবানি স্টাইলে বারবার আঘাত করে খুন করেছে।

এই ঘটনা কোঝিকোড়ের মাম্বা মন্ডলের এলুপলিতে ঘটেছে। ের মতে সকাল প্রায় ৯টা নাগাদ ২৭ বছর বয়সী সঞ্জিত নিজের স্ত্রী সঙ্গে বাইকে করে বাড়ি থেকে বেড়িয়েছিল। আর তখন একটি গাড়িতে করে চারজন এসে সঞ্জিতকে ঘিরে ফেলে। আর প্রকাশ্যে দিবালোকে স্ত্রীর সামনেই সঞ্জিতকে কুপিয়ে হত্যা করে তাঁরা।

বলে দিই, এটাই প্রথম না যে কেরলে কোনও RSS কর্মী খুন হলেন। এই বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে এক RSS কর্মীকে নির্মম ভাবে হত্যা করা হয়েছিল। RSS কর্মীর হত্যার প্রতিবাদে হিন্দু সংগঠন আর বিজেপি বনধ ডেকেছিল। সেই সময়েও RSS কর্মীর খুনে অভিযুক্ত ছিল SDPI-র কর্মীরা।