Press "Enter" to skip to content

‘বিজেপির মহিলা কর্মীদের ধর্ষণ করে খুন করব” লেখা পোস্টার পড়ল এলাকায়! অভিযুক্ত শাসক দল


খড়গপুরঃ নির্বাচনের ফল প্রকাশের পর থেকেই বারে বারে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে পশ্চিমবঙ্গের নানা প্রান্ত। জেলায় জেলায় আক্রান্ত হয়েছেন রাজনৈতিক কর্মী সমর্থকরা। নির্বাচনী ফল প্রকাশের পরে কেটে গিয়েছে প্রায় এক মাস। কিন্তু এখনো রাজনৈতিক উত্তাপ কমার কোনো লক্ষণ দেখা যাচ্ছে না। বরং উল্টে ফের একবার বিজেপির মহিলা কর্মীদের খুন এবং ের হুমকি দিয়ে লিফলেট ছাপানোর অভিযোগ উঠল তৃণমূল কংগ্রেস কর্মীদের বিরুদ্ধে।

ঘটনাটি ঘটেছে, ের খড়গপুরে। বিজেপির তরফে এই লিফলেটের একটি ছবিও প্রকাশ করা হয়েছে। যাতে দেখা যাচ্ছে বেশকিছু মহিলাকে নাম উল্লেখ করে খুন এবং ধর্ষণের হুমকি দেওয়া হয়েছে। কাউকে যেমন দোকান খোলা রাখার অভিযোগে খুন এবং ধর্ষণের হুমকি, কাউকে তেমনি দলের সঙ্গে প্রতারণা করার অভিযোগে খুন এবং ধর্ষণের হুমকি দেওয়া হয়েছে। যার জেরে এখন বেশ উত্তপ্ত খড়গপুর।

বিজেপির দাবি, এ বিষয়ে ইতিমধ্যেই খড়গপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে তারা। যদিও তৃণমূল তরফে তেমন কোন প্রতিক্রিয়া মেলেনি। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, বিজেপি কর্মীদের নামে হুমকি দিয়ে লিফলেট সাঁটার ঘটনা এই প্রথমবার নয়। স্থানীয় সূত্রের দাবি, দিন কয়েক আগে পশ্চিম মেদিনীপুরের কেশপুরের মহিষাদলেও একই রকম একটি ঘটনা ঘটেছে। সেখানে কার্যত ফতোয়া জারি করা হয় ১৮ জন বিজেপি কর্মীর বিরুদ্ধে। তাদের নাম উল্লেখ করে জানানো হয়, কোন দোকানদার এদের কোন মালপত্র বিক্রি করতে পারবেন না। যদিও এই ঘটনা সম্পূর্ণ ভাবে অস্বীকার করেছে তৃণমূল। এমনকি গুজব ছড়ানোর অভিযোগে মামলা রুজু করেছে পুলিশও।

আর তারপরেই সামনে এলো খড়গপুরের এই ঘটনা। যেখানে একাধিক বিজেপি কর্মীর নাম উল্লেখ করে খুন এবং ধর্ষণের হুমকি দেওয়া হল। স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ব এ বিষয়ে মুখ না খুললেও ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকাজুড়ে। রীতিমত আতঙ্কিত হয়ে রয়েছেন লিফলেটে নাম উল্লেখিত ওই পরিবারগুলি। এখন আগামী দিনে এ বিষয়ে পুলিশ কি পদক্ষেপ নেয় সে দিকেই নজর থাকবে সকলের।