Press "Enter" to skip to content

ব্যর্থতা ঢাকতে বড়সড় দাবি করেছিল চীন, ভারতের পাল্টা জবাবে হল মুখ বন্ধ


নয়া দিল্লিঃ া মিডিয়া দাবি করেছে যে তাঁদের দেশের এলএসি-তে রোবোটিক সৈন্য মোতায়েন করেছে। এই দাবির বিষয়ে ীয় নিরাপত্তা বাহিনীর উচ্চ সূত্র জানিয়েছে যে তাঁরা এখনও এমন কোনও রোবটিক সৈনিক দেখেনি। তবে যদি তাই হয়, এটি চীনা সৈন্যদের জন্য খুব সহায়ক প্রমাণিত হবে কারণ তাদের পক্ষে এখানে তীব্র শীত সহ্য করা খুব কঠিন।

এই নিয়ে টানা দ্বিতীয় বছর প্রচণ্ড ঠাণ্ডা সত্ত্বেও সীমান্তে অবস্থান করতে বাধ্য হয়েছে চীনা জওয়ানরা। বর্তমানে সেখানে তাপমাত্রা মাইনাস ২০ থেকে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস। প্রতি বছরের মতো এ বছরও এই হাড় কাঁপানো ঠাণ্ডার মধ্যে ভারতীয় সেনারা সেখানে ঘাঁটি গেড়েছে। সেনা সূত্র এএনআইকে জানিয়েছে যে, এখনও পর্যন্ত ওই এলাকায় কোনও রোবোটিক সৈন্যকে দেখতে পারেনি তাঁরা। তবে এটি ঘটলে চীনা সৈন্যদের জন্য খুব সহায়ক হবে, কারণ তাঁরা ঠান্ডার মুখোমুখি হতে অভ্যস্ত নয়।

সূত্র জানায়, ঠান্ডার কারণে অনেক জায়গায় চীনা সেনারা ব্যারাক থেকে বের হচ্ছে না। চীনা জওয়ানরা অল্প সময়ের বের হয় এবং সাথে সাথে ব্যারাকে প্রবেশ করে। গত বছরও শীতের কারণে চীনা সেনাদের অনেক সমস্যায় পড়তে হয়েছিল। এর পরে গ্রীষ্মে চীনা সেনাবাহিনী ৯০ শতাংশ জওয়ানের বদলি করেছিল, কারণ তাঁরা ভয়ঙ্কর ঠাণ্ডায় অসুস্থ হয়ে পড়েছিল।

FIle Pic

প্যাংগং লেক এলাকাতেও চীনা জওয়ানদের ক্রমাগত পরিবর্তন করা হচ্ছিল, কারণ ওই জায়গাটি অনেক উঁচুতে এবং সেখানেও খুব ঠান্ডা। ভারতীয় জওয়ানরা উচ্চতায় যুদ্ধ করতে পারদর্শী এবং ঠান্ডা সামলাতেও পারদর্শী। এরকম জায়গায় দুই বছরের জন্য জওয়ানদের মোতায়েন করা হয় এবং প্রতি বছর ৪০ থেকে ৫০ শতাংশ জওয়ান বদলি করা হয়।