Press "Enter" to skip to content

ব্যালকনিতে দাঁড়াতে পারবে না মহিলারা, মেয়েদের স্কুলে গান-খেলা নিষিদ্ধ! নয়া ফতোয়া তালিবানের


নয়া ঃ তালিবানরা গোটা আফগানিস্তানে কবজা করার পর এবার গড়ার প্রক্রিয়া শুরু করেছে। সরকারি কর্মীদের সাধারণ ক্ষমা করে দেওয়া আর তাঁদের ভয় না পেয়ে আবারও কাজে দেওয়ার ঘোষণার পড় তালিবানরা আরও একটি বড় ঘোষণা করেছে। জানিয়েছে যে, তাঁদের সরকার সম্পূর্ণ ভাবে িক হবে। তাঁদের সরকারে মহিলাদেরও সামিল করা হবে। তালিবানরা জানিয়েছে, তাঁদের উদ্দেশ্যে মহিলাদের বিরুদ্ধে হওয়া হিংসা রোখা।

ইসলামি আমিরাত কমিশনের সদস্য ইনামুল্লাহ সমনগনি মঙ্গলবার আফগানিস্তানের সরকারি টিভিতে এই মন্তব্য করেছে। বলে দি, সমগ্র আফগানিস্তানের মতোই আফগান সরকারি টিভিও এখন তালিবানদের কবজায়। ইনামুল্লাহ বলেছে, ‘ইসলামি আমিরাত চায় না যে মহিলারা অত্যাচারিত হোক।” উল্লেখ্য, তালিবান আফগানিস্তানের জন্য ইসলামিক আমিরাত শব্দের প্রয়োগ করে।

ইমানুল্লাহ জানিয়েছে, ‘সরকারের পরিকাঠামো বা উদ্দেশ্য এখনও পুরোপুরি স্পষ্ট নয়। তবে আমাদের মতে সরকার সম্পূর্ণ ভাবে ইসলামিক নেতৃত্বে থাকুক আর সমস্ত পক্ষকে সরকারে যুক্ত করা হোক। এখন সরকার বানানোর অ্যাজেন্ডা নির্ধারণ করা হচ্ছে না। খুব শীঘ্রই প্রস্তাবের ঘোষণা হবে।”

তালিবান মঙ্গলবার সমস্ত কর্মচারীদের ‘সাধারণ ক্ষমা” দেওয়ার ঘোষণা করেছে। তালিবান বয়ানে জানিয়েছে, সবার জন্য সাধারণ ক্ষমার ঘোষণা করা হচ্ছে, এরপর আপনারা আমাদের দৈনিক জীবন সম্পূর্ণ বিশ্ের সঙ্গে শুরু করতে পারেন। তালিবান জানিয়েছে, কোনও সরকারি কর্মীদের ভয় পাওয়ার কারণ বা দরকার নেই। আপনাদের কোনও ক্ষতি করা হবে না। সবাই কাজে ফিরে আসুন।

মহিলাদের জন্য যেই নিয়মগুলি লাগু করেছে তালিবান … 

  • মহিলারা রাস্তায় বোরখা ছাড়া বের হতে পারবে না। তাঁর সঙ্গে একজন পুরুষ আত্মীয় থাকা অত্যন্ত জরুরি।
  • মহিলারা ঘরের ব্যালকনিতে বের হতে পারবে না।
  • মহিলারা যাতে বিল্ডিংয়ের ভিতরে দেখোতে না পারে, তাঁর জন্য সমস্ত গ্রাউন্ড ফ্লোর আর ফার্স্ট ফ্লোরের কাঁচের জানালা হয় পেন্ট করে দেওয়া হবে, নাহলে মোটা কাপড় দিয়ে ঢেকে দেওয়া হবে।
  • মহিলারা হাই-হিল জুতো পরতে পারবে না। ওঁরা মেকআপ করতে পারবে না। জোরে হাসতে বা বলতে পারবে না।
  • মহিলারা কোনও সিনেমা, পত্রিকাতে নিজেদের ছবি দিতে পারবে না।
  • মেয়েদের ে গান আর খেলাধুলা নিষিদ্ধ।