Press "Enter" to skip to content

ভোটে হারায় চটলেন প্রার্থী, দু’বছর আগে বিতরণ করা কম্বল নিলেন কেড়ে


Kolkata: ভোটে জেতার জন্য প্রার্থীরা কতই না প্রতিশ্রুতি দেয়। পাশাপাশি ভোটের আগে চলে দেদার বিতরণ। কখনো খাওয়ার জন্য টাকা, আবার কখনো মাংস ভাত। কোনও কিছু বাদ যায় না। এছাড়াও টেবিল ফ্যান, মিক্সার গ্রাইন্ডারও বিতরণ করেন প্রার্থীরা। আবার শীত থেকে বাঁচাতে বিতরণ করা হয় কম্বলও। কিন্তু কখনো শুনেছেন ভোটে হেরে প্রার্থীর দেওয়া উপহার কেড়ে নেওয়া হয়েছে? এমনই ঘটনা ঘটে গেল প্রতিবেশী দেশ বাংলাদেশে (Bangladesh)।

বাংলাদেশের সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, টাঙ্গাইল জেলার কালিহাতি উপজেলার ৭,৮ ও ৯ নম্বর ওয়ার্ডের সংরক্ষিত আসনের প্রার্থী রমেছা খানম প্রায় দু’বছর আগে ওই ওয়ার্ডেরই শঙ্কু, বঙ্কু, অনু মিঞা আর মকবুল হোসেন নামের চার ব্যক্তিকে কম্বল দিয়েছিলেন। তাঁরা দুই বছরই শীতে সেই কম্বল ব্যবহার করে নিজেদের গরম রেখেছিল।

কিন্তু সম্প্রতি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনের ফলাফলে দেখা যায় যে, কম্বল বিতরণকারী প্রার্থী রমেছা খানম হেরে গিয়েছেন। আর এরপরই ক্ষুব্ধ রমেছা শঙ্কু, বঙ্কু, অনু মিঞা আর মকবুল হোসেনদের থেকে তাঁর দেওয়া বিতরণ করা কম্বল কেড়ে নেন।

জানা গিয়েছে যে, রমেছাকে হারিয়ে এবারের নির্বাচনে জয়ী হয়েছেন জ্যোৎস্না বেগম। আর জয়ী প্রার্থীর প্রতিবেশী হলেন শঙ্কু, বঙ্কু, অনু মিঞা আর মকবুল হোসেন। রমেছার আশঙ্কা, তিনি যাদের কম্বল বিতরণ করেছিলেন, তাঁরা তাঁকে ভোট না দিয়ে ওনার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী জ্যোৎস্নাকে ভোট দিয়েছেন। আর এই কারণেই তিনি দু’বছর আগে বিতরণ করা কম্বল কেড়ে নিয়েছেন।

যদিও, হেরে যাওয়া প্রার্থী রমেছা আবার এগুলোকে গুজব এবং বিরোধী দলের রটনা বলে উড়িয়ে দিয়েছেন। তিনি বলেছেন, বিরোধীরা আমার বিরুদ্ধে কুৎসা ছড়াতে এই গুজব রটিয়েছে। আমি এমন কিছুই করিনি।