Press "Enter" to skip to content

মানবিক পুলিশ! বস্তিতে গিয়ে গরিব মানুষদের মুখে অন্ন তুলে দিল জওয়ানরা

নয়া দিল্লীঃ ের () সঙ্কটের মধ্যে অনেক জায়গা থেকেই পুলিশের মানবিক চেহারা নজরে আসছে। ২১ দিন পর্যন্ত লাগু এই লকডাউনের মধ্যে ) বৃহস্পতিবার পশ্চিম দিল্লীর বস্তি গুলোতে গিয়ে খাওয়ারের প্যাকেট বিতরণ করে। এছাড়াও অনাদের মধ্যে নিয়ে সচেতনতা অভিযান চালান।

https://platform.twitter.com/widgets.js

আধিকারিকরা জানান, একটি বেসরকারি সংগঠনের মাধ্যমে রঘুবীর নগর আর গোন্ডেবালা মন্দির এলাকার বস্তি গুলোতে প্রায় এক হাজার প্যাকেট খাওয়ার বিতরণ করা হয়। এক পুলিশ আধিকারিক জানান, ‘এক নূর” নামের একটি বেসরকারি সংগঠন আর অমন কমেটির সাহায্যে দিল্লী পুলিশের জওয়ানরা খাওয়ারের প্যাকেট বিতরণ করেন এবং সাফ-সাফাই নিয়ে সচেতনতা অভিযান চালায়। এই অভিযানে বস্তিতে থাকা মানুষদের করোনা ভাইরাস সম্বন্ধ্যে জাগরুক করা হয় এবং সতর্ক থাকতে বলা হয়।

আরেকদিকে, আজ দিল্লীর মুখ্যমন্ত্রী () উপরাজ্যপাল () এর সাথে একটি সমীক্ষা মিটিং করার সময় ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বলেন, লকডাউনের সময় SDM আর ACP এটা যেন সুনিশ্চিত করেন যে, সবজি, দুধ, রেশন এর মতো প্রয়োজনীয় সুবিধার দোকান যেন খোলা হয়, আর দোকানে যেন সবকিছু পাওয়াও যায়। উপরাজ্যলাপ বলেন, প্রয়োজনীয় বস্তু সুনিশ্চিত করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, জনগণ যাতে সমস্যার সন্মুখিন না হয়, সেই জন্য সমস্ত পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

দিল্লীর মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরীবাল বলেন, রাজধানী দিল্লীতে এখনো পর্যন্ত ৩৬ জনের মধ্যে করোনার সংক্রমণ পাওয়া গেছে। উনি বলেন, এদের মধ্যে ২৬ জন বিদেশ থেকে এসেছেন। আর ১০ জনের মধ্যে সংক্রমণ এদের কারণেই ছড়িয়ে পড়েছে। মুখ্যমন্ত্রী কেজরীবাল দিল্লীর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আছে বলে জানান।