Press "Enter" to skip to content

যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন করল ইজরায়েল, হামাসে স্ট্রাইক করে বলল ‘এটা পাল্টা আক্রমণ ছিল”


ওয়েবডেস্কঃ  আর প্যালেস্তাইনের মধ্যে মাত্র কয়েক সপ্তাহের ব্যবধানে সমাপ্ত হল। এবার ইজরায়েলের তরফ থেকে গাজাপট্টিতে রকেট হানা করা হয়েছে। যদিও, ইজরায়েল এটাকে পাল্টা আক্রমণ বলে আখ্যা দিয়েছে। ইজরায়েল জানিয়েছে যে, প্রথমে হামাস তাঁদের দিকে রকেট ছোঁড়ে, তাঁর জবাবেই আমরাও পাল্টা আক্রমণ করি। উল্লেখ্য, কয়েক সপ্তাহ আগেই দুই দেশের মধ্যে ১১ দিন ধরে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ চলার পর যুদ্ধবিরতি ঘোষণা হয়েছিল। ওই সংঘর্ষে ২২০-র বেশি মানুষ প্রাণ হারিয়েছিলেন। আমেরিকে সহ বিভিন্ন দেশের অনুরোধের পর ইজরায়েল আর প্যালেস্তাইন যুদ্ধবিরতি ঘোষণা করায় সহমত হয়েছিল। কিন্তু তা বেশিদিন পর্যন্ত টিকল না।

‘দ্য সান” এর রিপোর্ট অনুযায়ী, ইজরায়েল যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন করে আরও একবার গাজার দিকে রকেট ছুঁড়েছে। মঙ্গলবার রাতে আচমকাই ইজরায়েলের তরফ থেকে গাজা লক্ষ্য করে রকেট ছোঁড়া হয়। ইজরায়েলের দ্বারা যুদ্ধবিরতি ঘোষণার পর এটাই সবথেকে বড় ঘটনা। যদিও এখনও জানা যায়নি যে ইজরায়েলের রকেটের আঘাতে প্যালেস্তাইনে কতটা ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

আরেকদিকে, ইজরায়েলের তরফ থেকে জানানো হয়েছে যে তাঁরা হামাসের আক্রমণের জবাব দিয়েছে মাত্র। ইজরায়েলি সেনা একটি বয়ান জারি করে বলেছে, প্রথমে হামাসের তরফ থেকে আক্রমণ শুরু হয়েছিল, এরপর আমরা পাল্টা আক্রমণ করি। ইজরায়েল এই ঘটনাকে উস্কানিমূলক আর যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন আখ্যা দিতে অস্বীকার করেছে। তাঁরা জানিয়েছে, আমরা কেবল আত্মরক্ষার জন্য করেছি এটা। আরেকদিকে, হামাসের মুখপাত্র জানিয়েছে প্যালেস্তাইন জেরুজালেমে নিজেদের অধিকার আর পবিত্র স্থলের রক্ষা করার অভিযান জারি রাখবে।

উল্লেখ্য, ১১ দিন পর্যন্ত চলা ইজরায়েল প্যালেস্তাইনের রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ ২১ মে ২০২১-এ যুদ্ধবিরতি চুক্তি হিসেবে সমাপ্ত হয়েছিল। এই সংঘর্ষে দুই পক্ষেরই ক্ষয়ক্ষতি হয়েছিল কিন্তু হামাসের দখলে থাকা গাজা এলাকায় অত্যাধি ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছিল।