Press "Enter" to skip to content

লেকচার দেবেন না, মানবতার খাতিরে গোটা বিশ্বকে ভারতই টিকা দিয়েছিলঃ ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ম্যাক্রোঁ



নয়া দিল্লীঃ করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে জেরবার ভারত। থেকে শুরু করে শ্মশানে বাড়ছে ভিড়। দেশে অক্সিজেনেরও পড়েছে আকাল। আর এরমধ্যে বিভিন্ন দেশ ভারতের দিকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিচ্ছে। অক্সিজেন জেনারেটর, ভেন্টিলেটর সহ চিকিৎসার সরঞ্জাম আসছে । আর এরমধ্যে কেন্দ্রের মোদী সরকারের সমালোচনা হচ্ছে দেশ আর বিদেশে। এবার ভারত এবং মোদী সরকারের পাশে দাঁড়িয়ে সমালোচকদের মুখ বন্ধ করালেন ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইম্যানুয়েল ম্যাক্রোঁ।

ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন-ভারতের ভার্চুয়াল সম্মেলনে নিজের বক্তব্য পেশ করার সময় ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইম্যানুয়েল ম্যাক্রোঁ বলেন, ‘ভারতকে জ্ঞান েন না। ওঁরা সঙ্কটের সময়ে বিশ্বের বহু দেহসকে করোনার ভ্যাকসিন দিয়েছিল। বর্তমানে ভারত এখন কঠিন পরিস্থিতির সম্মুখীন হয়েছে সেটা আমরা ভালো মতোই জানি।”

করোনার প্রথম ঢেউয়ের মধ্যেই ভারতে করোনার টিকা আবিস্কার হয়ে গিয়েছিল। গোটা দেশে চলছিল টিকাকরণ অভিযান। আর সেই পরিস্থিতিতেও ভারত বিশ্বের করোনা আক্রান্ত দেশগুলির পাশে দাঁড়িয়ে তাঁদের টিকা রফতানি করেছিল। আরব, বাংলাদেশ, ব্রাজিল সহ বিশ্বের একাধিক দেশকে টিকা দিয়ে সঙ্কটের মুহূর্তে দেবদূত হয়ে উঠেছিল ভারত। তবে বর্তমানে ভারতেই টিকার আকাল দেখা দিয়েছে। আর এই নিয়ে ঘরে-বাইরে সমালোচনার সম্মুখীন হতে হয়েছে কেন্দ্রের মোদী সরকারকে।

কেন্দ্রীয় স্্থ্য মন্ত্রালয় জানিয়েছে যে, এখনও পর্যন্ত রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলিতে ১৭ কোটি ৪৯ লক্ষ ডোজ করোনার ভ্যাকসিন পাঠানো হয়েছে। এরমধ্যে ১৬ কোটি ৭০ লক্ষ ডোজ ব্যবহার করাও হয়ে গিয়েছে। বর্তমানে রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলোর কাছে ৮৪ লক্ষেরও বেশি কিছু টিকা মজুত আছে। তবে এই টিকা পর্যাপ্ত নয়। আগামী তিনদিনের মধ্যে আরও ৫৩ লক্ক ডোজ রাজ্য এবং কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলোতে পাঠানো হবে বলে জানিয়েছে কেন্দ্র সরকার।