Press "Enter" to skip to content

শ্রীকৃষ্ণ জন্মভূমি থেকে মসজিদ হটানোর দাবি স্বীকার, শুনানির জন্য বিরোধী পক্ষকে নোটিশ জারি করল আদালত

নয়া দিল্লীঃ মথুরা (Mathura) জেলা জজ কোর্ট শ্রীকৃষ্ণ বিরাজমানের (Shri Krishna Virajman) আবেদন স্বীকার করে নিয়েছে। আদালত সমস্ত পক্ষকে নোটিশ জারি করে তাঁদের বক্তব্য রাখার কথা বলেছে। এই মামলার আগামী শুনানি ১৮ই নভেম্বর হবে। জানিয়ে দিই, শ্রীকৃষ্ণ বিরাজমান দ্বারা শ্রীকৃষ্ণ জন্মভূমির ১৩.৩৭ একর জমির দাবি করা হয়েছিল। এর সাথে সাথে আবেদনে ঈদগাহকেও হটানোর দাবি করা হয়েছে। এর আগে সিভিল জজ আদালত এই আবেদন খারিজ করে দিয়েছিল। এবার জেলা জজ কোর্ট এই আবেদনে সিদ্ধান্ত শোনাবে।

আবেদনকারীরা জানিয়েছিলেন যে, আমাদের আবেদন যেন স্বীকার করা হয়। জেলা জজ যত বিরোধী আছে, তাঁদের সবাইকে নোটিশ জারি করেছে। তাঁদের মসজিদের পক্ষে কথা বলতে হবে এবার।

হিন্দু পক্ষ কৃষ্ণ জন্মভূমিতে শাহী ঈদগাহ মসজিদকে অবৈধ বলে সেটিকে সরানর দাবি তুলেছে। এর সাথে সাথে ১৩.৩৭ একর জমিতে নিজেদের অধিকার কায়েম করার দাবি তুলেছে। দাবি করা হয়েছে যে, যেখানে বর্তমানে মসজিদ আছে সেখানে পুরাতন কালে কংসের কারাগার ছিল। আর সেখানেই কৃষ্ণের মন্দির ছিল। মুঘল শাসকেরা সেটিকে ভেঙে সেখানে ঈদগাহ মসজিদ বানিয়েছে।

এই মামলা নিয়ে মথুরা সিভিল জজ কোর্টে পিটিশন দাখিল করা হয়েছে, কিন্তু জজ কোর্ট সেই আবেদন খারিজ করে দেয়। এরপর হিন্দু পক্ষরা জেলা জজ আদালতে এই মামলার শুনানির জন্য আবেদন জানায়।