Press "Enter" to skip to content

সংঘের বিরুদ্ধে লড়াই করতে ভগবান রামের শরণে কেরলের বামেরা, আয়োজন করল রাম কথার

মলপ্পুরমঃ আগাগোড়াই ভগবানের অস্তিত্বে বিশ্বাস না করা এবং কোনও ধর্মকে না মানার দাবি করা েরা এবার ের শরণে। কেরলের ক্ষমতাসীন দল সিপিআই এবার এবং দক্ষিণপন্থী শক্তির বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য ভগবান রামের শরণে গেল। কেরলের মলপ্পুরম জেলার সিপিআই কমিটি রামায়ণ মহাকাব্য নিয়ে সাত দিনের অনলাইন প্রবচনের আয়োজন করেছিল।

প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী সিপিআইয়ের তরফ থেকে এই প্রবচনের আয়োজন ২৫ জুলাই শুরু করা হয়েছিল, যা শনিবার সমাপ্ত হয়েছে। এই অনলাইন প্রবচনের নাম ‘রামায়ণ অ্যান্ড ইন্ডিয়ান হেরিটেজ” দেওয়া হয়েছিল।

মলপ্পুরমের সিপিআই জেলা সচিব পিকে কৃষ্ণদাস জানান, সাম্প্রদায়িক আর ফ্যাসিবাদী শক্তি হিন্দু ের সঙ্গে যুক্ত প্রতিটি জিনিষে নিজেদের দাবি করে। তিনি জানান, রামায়ণের মতো মহাকাব্য দেশের আর ঐতিহ্যের অংশ। রামায়ণ নিয়ে টক সিরিজ আয়োজনের সিপিআই -এর সিদ্ধান্তের বিষয়ে তিনি বলেন, প্রগতিশীল সময়ে কীভাবে রামায়ণের মতো একটি মহাকাব্য পড়া এবং বোঝা উচিত তা দেখার জন্য এটি একটি প্রচেষ্টা।

রামায়ণ নিয়ে আয়োজিত এই টক সিরিজে অনেক বামপন্থী নেতা নিজেদের বিচার সবার সামনে রাখেন। এই অনুষ্ঠানে রামায়ণ যুগের মানুষ আর অন্য দেশের রাজনৈতিক সম্পর্ক, রামায়ণ কালে রাজনীতি নিয়ে চর্চা হয়।

উল্লেখ্য, কেরলে ১৭ জুলাই থেকে পারম্পরিক রুপে মালয়ালম মাস কারকিডকাম পালিত হয়। এই মালয়ালম মাসে হিন্দুদের ঘরে ভগবান রামের পৌরাণিক কথা শোনানো হয়। কেরলের মানুষের মান্যতা অনুযায়ী, এই মাসে রাম কথা শোনানো হলে বৃষ্টির কারণে সৃষ্টি হওয়া রোগ থেকে দূরে থাকা যায়।