Press "Enter" to skip to content

সাংবাদিকের খোঁজে বাড়ি বাড়ি তল্লাশি চালাচ্ছে তালিবানরা, হদিশ না মেলায় আত্মীয়কেই খুন


নয়া দিল্লিঃআফগানিস্তানে তালিবানরা এক সাংবাদিকের খোঁজ চালাচ্ছে। আর সেই সাংবাদিককে খুঁজে না পেয়ে তালিবানরা তাঁর পরিবারের সদস্যকেই হত্যা করল। আরেকজন গুরুতর আহত। ডায়চে চেলের সাংবাদিকের খোঁজে তালিবানরা বাড়ি বাড়ি গিয়ে তল্লাশি চালাচ্ছে। ওই সাংবাদিক এখন জার্মানিতে কর্মরত। আর তাঁরই খোঁজ চালাতে গিয়ে তালিবানরা সাংবাদিকের দুজন আত্মীয়কে গুলি করে। যাদের মধ্যে একজনের মৃত্যু হয়েছে আরেকজন গুরুতর আহত। সাংবাদিকের বাকি পরিজনেরা পালিয়ে নিজের প্রাণ বাঁচিয়েছে। ওই সংবাদ মাধ্যমের ডাইরেক্টর এই ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে জার্মান সরকারকে পদক্ষেপ নেওয়ার আবেদন জানিয়েছেন।

সংবাদ মাধ্যমের ডায়রেক্টর পিটার লিম্বার্গ একটি বয়ান জারি করে বলেছেন, ‘আমাদের এক সম্পাদকের পরিজনকে তালিবানরা হত্যা করেছে। এই ঘটনা প্রমাণ করে যে সেখানকার অবস্থা এখন কেমন। আমরা জানিনা আফগানিস্তানে আমাদের বাকি কর্মী আর তাঁদের পরিবার এখন কেমন অবস্থায় রয়েছে। তালিবানের জঙ্গিরা আফগানিস্তানের বিভিন্ন প্রান্তে সাংবাদিকদের খোঁজ চালাচ্ছে। তালিবান ডিডব্লুর তিনজন সাংবাদিকের বাড়িতে তল্লাশি চালিয়েছে। শোনা যাচ্ছে যে, একজন সাংবাদিককে অপহরণও করেছে তাঁরা।”

উল্লেখ্য, এর আগে তালিবান ভারতের এক চিত্র সাংবাদিক দানিশ সিদ্দিকিকে হত্যা করেছিল। তখন তালিবানরা গোটা আফগানিস্তানে কবজা জমাতে পারেনি। এমনকি তালিবানরা সিদ্দিকির মৃত্যুর দায় করেনি। এক মুখপাত্র জানিয়েছিল যে, সিদ্দিকি নিজের ভুলের জন্যই মরেছে। আমাদের এতে কোনও হাত নেই।

জানা গিয়েছিল যে, তালিবানরা সিদ্দিকিকে হত্যা করে তাঁর মরদেহর সঙ্গে অকথ্য অত্যাচারও চালিয়েছিল। তাঁর মরদেহর উপর দিয়ে গাড়ি চালিয়ে সিদ্দিকির মাথা থেঁতলে দিয়েছিল ওঁরা। যদিও, তালিবানরা এই ঘটনার কথাও অস্বীকার করেছিল।