Press "Enter" to skip to content

সোনিয়া গান্ধীর আসল নাম প্রকাশ করায় অর্ণব গোস্বামীর কুরুচিকর ভাষায় গালি গালাজ কংগ্রেস নেতার

ভারতের বিখ্যাত সাংবাদিক অর্নব গোস্বামীর সাথে এখন কংগ্রেসের খোলাখুলি দ্বন্দ শুরু হয়েছে। আসলে কংগ্রেস পার্টি যাকে মাতা বলে গণ্য করে তার উপর কড়া ভাষায় আক্রমন করেছেন । সোনিয় গান্ধীর আসল নাম আন্তোনিও মাইনো এটাও খোলাখুলি এক অনুষ্ঠানে বলেন । যার পর পুরো কংগ্রেস পার্টি অর্ণব গোস্বামীর উপর ক্ষেপে উঠেছে।

মহারাষ্ট্রে যে সরকার রয়েছে সেখানে সোনিয়া গান্ধীর দারুন নিয়ন্ত্রণ রয়েছে। এর মধ্যে পালঘরে যে কান্ড ঘটেছে তা নিয়র উনি একটাও শব্দ প্রকাশ করেননি। যারপর রিপাবলিক টিভির এডিটর ইন চীফ অর্নব গোস্বামী এর উপর কংগ্রেস সরকারকে ঘিরেছিলেন। অর্ণব গোস্বামী প্রশ্নঃ তুলে বলেন ভারতে ৮০% হিন্দু সনাতনী রয়েছে তা সত্ত্বেও এমন ঘটনা নিয়ে কেন সকলে নিশ্চুপ? তাহলে কি গেরুয়া পরিধান করা পাপ হয়ে গেছে- প্রশ্নঃ তোলেন গোস্বামী। ইতালিতে এই সমস্ত সাধু হত্যার রিপোর্ট পাঠান বলে অভিযোগ তোলেন গোস্বামী।

গোস্বামী এর মধ্যেই সোনিয়া গান্ধীকে আন্তোনিয়া মাইনো বলে গণ্য করেন এবং পালঘরে সাধুহত্যা কাণ্ডের উপর জবাব দিতে বলেন। এর পর কংগ্রেসের নেতারা অর্নব গোস্বামীকে সাম্প্রদায়িক আখ্যা দেন। কংগ্রেসের এক নেতা অর্নব গোস্বামীকে গালি দিয়ে বলেন, যা প্রশ্ন করার তোমার বাবা মোদীর থেকে করো। গৌরব পানধি নামক কংগ্রেসের এক নেতা অর্নব গোস্বামীকে খোলাখুলি গালি গালাজ করেছেন। সোনিয়া গান্ধীর আসল নাম প্রকাশ পাওয়ার কারণেই এমন অভদ্র ভাষায় কংগ্রেস আক্রমন শুরু করেছে বলে মনে করা হচ্ছে।

https://platform.twitter.com/widgets.js

রণদীপ সিং সূর্যেবালা থেকে শুরু করে অশোক গেহলতও সকলে মিলে অর্নব গোস্বামীর বিরুদ্ধে হাত ধুয়ে মাঠে নেমে পড়েছে। যদিও FIR দায়ের করেও অর্নব গোস্বামীকে জেলে ঢোকাতে পারেনি কংগ্রেস। আদালত উল্টে অর্ণব গোস্বামীর গ্রেফতারির উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে।