Press "Enter" to skip to content

হিন্দু সংস্কৃতিকে বাঁচাতে পর্তুগীজদের দ্বারা ভেঙে দেওয়া মন্দিরগুলি পুনর্নির্মাণ করা হবেঃ গোয়ার মুখ্যমন্ত্রী

পানাজিঃ আর মাস দুয়েক রয়েছে গোয়া (Goa) বিধানসভার নির্বাচনে। রাজ্যে যখন নির্বাচনী দামামা বেজে গিয়েছে, তখন গোয়ার মুখ্যমন্ত্রী () বড় ঘোষণা করে সবাইকে চমকে দিলেন। মুখ্যমন্ত্রী প্রমোদ সাওয়ান্ত ঘোষণা করে বলেছেন যে, পর্তুগীজদের (Portuguese) দ্বারা নষ্ট করা মন্দির পুননির্মাণের কাজ করবে গোয়ার সরকার। মুখ্যমন্ত্রী এই কথা দক্ষিণ গোয়ার মাঙ্গুশি মন্দিরে রাজ্য সরকার দ্বারা আয়োজিত একটি অনুষ্ঠানে এই কথা বলেছেন। সাওয়ান্ত বলেছেন, হিন্দু সংস্কৃতি আর মন্দির সংস্কৃতির করার দরকার রয়েছে।

গত মঙ্গলবার দক্ষিণ গোয়ার মাঙ্গুশি মন্দির চত্বরে আয়োজিত অনুষ্ঠানে মুখ্যমন্ত্রী প্রমোদ সাওয়ান্ত বলেন, ‘আরও কিছু মন্দির আছে যেগুলো পুনঃপ্রতিষ্ঠা করা দরকার। পর্তুগিজদের দ্বারা ধ্বংস করা মন্দিরগুলি পুনর্নির্মাণ শুরু করতে হবে আমাদের। আমি কিছু চাই না। আমি আপনাদের কাছে হিন্দু ও মন্দির সংস্কৃতি রক্ষা এবং সেই মন্দির ও সংস্কৃতি পুনরুদ্ধারের জন্য শক্তি প্রদানের অনুরোধ করছি।”

সাওয়ান্ত আরও বলেন, “পর্তুগীজরা ১৫৬০ সাল থেকে আমাদের মন্দির ধ্বংস করা শুরু করে। আমি আমাদের সেই পূর্বপুরুষদের ধন্যবাদ জানাই, যারা দেবতা মঙ্গেশকে কোর্টালিম (দক্ষিণ গোয়ার গ্রাম) থেকে এই জায়গায় (মাঙ্গুশি গ্রাম) স্থানান্তরিত করেছিল। ঈশ্বর এবং আমাদের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ।”

সিএম সাওয়ান্ত বলেন যে, পূর্বপুরুষরা পর্তুগীজ শাসকদের দ্বারা করা ধর্মীয় অত্যাচার থেকে বাঁচতে উপকূলীয় রাজ্যে অনেক মন্দির স্থানান্তর করেছিলেন। ১৯৬১ সালে ৪৫১ বছর পর গোয়ার পর্তুগিজ ঔপনিবেশিক শাসনের অবসান ঘটে। আমরা আমাদের পূর্বপুরুষদের প্রতি কৃতজ্ঞ যারা আমাদের প্রভুকে বাঁচানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন, তাকে অন্যত্র সুরক্ষা প্রদান করেছিলেন এবং নৃশংস পর্তুগীজ শাসনের সময় এটিকে অন্যত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠিত করেছিলেন।”