Press "Enter" to skip to content

১০ হাজার কেজির বোমা ফেলে কাবুলের হামলাকারী জঙ্গিদের টুকরো টুকরো করেছিল ট্রাম্প


নয়া দিল্লিঃ ের কাবুল বিমানবন্দরে আত্মঘাতী হামলার দায় -K সংগঠন নিয়েছে। এই হামলার ১০০ জনের বেশি মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন। পাশাপাশি ১৩ জন মার্কিন কর্মীও প্রাণ হারিয়েছেন। মার্কিন জো বাইডেন পরিষ্কার জানিয়েছেন যে, হামলাকারীদের খুঁজে বের করে শাস্তি দেওয়া হবে। বলে দি, এর আগে আমেরিকা আফগানিস্তানের ISIS-K জঙ্গিদের খতম করতে ১০ হাজার কেজির বোমা ফেলেছিল। ওই বোমাকে সব বোমার ‘মা” বলা হয়।

ম্যাসিভ অর্্যান্স এয়ার ব্লাস্ট বোমা (MOAB) একটি অপরমাণবিক বোমা। এই বোমা মার্কিন সেনা বিমানের মাধ্যমে নাঙ্গারহার প্রান্তে ফেলেছিল। রিপোর্টস অনুযায়ী, আমেরিকার ে ব্যবহৃত সবথেকে ভয়ানক অপরমাণবিক বোমা ছিল সেটি। আর এই বোমা হামলার পর তৎকালীন মার্কিন রাষ্ট্রপতি নিজের দেশের সেনার করেছিলেন।

ের প্রেস সেক্রেটারি শন স্পাইসার বলেছিলেন, আমরা কয়েকটি সুড়ঙ্গ আর গুহাকে লক্ষ্য করেছিলাম যেগুলিকে ISIS-K জঙ্গিরা নিজেদের দুর্গ বানিয়ে রেখেছিল। ওই ঘাঁটি গুলির সাহায্যে ISIS-K জঙ্গিরা আমেরিকার সেনা আর আফগান সেনার উপর হামলা চালাত। উনি জানিয়েছিলেন, ওই এলাকায় থাকা সাধারণ মানুষের নিরাপত্তার কথাও ভাবা হয়েছিল বোমা নিক্ষেপের আগে।

অন্যদিকে ওই প্রান্তের গভর্নর ইসমাইল শিনবারি বলেছিলেন, উনি নিজের জীবনে এত বড় ধামাকা কোনদিনও দেখেন নি। সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলার সময় স্থানীয় আধিকারিকরা জানিয়েছিলেন, এই হামলায় অজস্র ISIS-K জঙ্গি মারা গিয়েছিল। রিপোর্টস অনুযায়ী, ওই বিস্ফোরণে ISIS-K জঙ্গির সিনিয়ার লিডারের ভাইও মারা গিয়েছিল।