Press "Enter" to skip to content

১৫ জন জামাতি আটকে রেখেছিল নার্সকে, ছিঁড়ে দিল নার্সের পোশাক! পালিয়ে বাঁচল প্রাণ

[ad_1]

এদের জামাতি বলবেন নাকি আতঙ্কবাদী বলবেন সেটা আপনাদের বিষয়। কারণ ডাক্তার, নার্সদের এখন পুরো ভারত ভগবানের চোখে দেখছে। অন্যদিকে এই উন্মাদীরা নার্স ও ডাক্তারদের উপর থুতু দিচ্ছে, আক্রমন করছে। শুধু এই নয় যে সমস্ত ডাক্তারদের টিম জামাতি থাকা এলকায় যাচ্ছে সেখানে চিকিৎসক, পুলিশ সকলকেই আক্রমনের শিকার হতে হচ্ছে।

জামাতিদের বিরুদ্ধে বলার জন্য নিউজ পোর্টাল সহ বাকি সংবাদ মাধ্যমগুলিকেও হুমকির মুখোমুখি হতে হয়েছে। যার জন্য অনেক সংবাদ মাধ্যম জামাতিদের উপদ্রব তুলে ধরা বন্ধ করে দিয়েছে। তবে সত্য এই যে, এখনও অবধি উন্মাদী জামাতিরা তাদের উপদ্রব বজায় রেখেছে।

সম্প্রতি ভারতের আরেক হাসপাতালে জামাতিদের অসভ্যতামির ছবি সামনে এসেছে। হাসপাতালের নার্স নিজের মুখে জামাতিদের নোংরামির কথা জানিয়েছেন। জামাতির রক নার্সের পোশাক ছিঁড়ে দিয়েছে বলে খবর সামনে এসেছে।

নার্স নিজের মুখে জামাতিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলে একথা বলেছেন। ডিউটিতে থাকা একজ নার্সকে ১৫ থেকে ২০ জন জামাতি জোরপূর্বক আটকনোর চেষ্টা করে। খাবার নিয়ে জামাতির নার্সকে জ্বালাতন করে। নার্স কোনোভাবে হাসপাতাল থেকে পলায়ন করে বাইরে আসে এবং সংবাদ মাধ্যমের কাছে জামাতিদের উপদ্রবের বিষয়ে জানায়।

https://platform.twitter.com/widgets.js

এর আগে এক হাসপাতালে জামাতিরা প্যান্ট খুলে নার্সদের সামনে নাচানাচি করেছিল। জামাতিরা নিজের গুপ্তাঙ্গ দিয়ে নানা বাজে ইঙ্গিত করছিল। যদিও সেই সময়েও জামাতি সমর্থকরা ঘটনাকে জামাতের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র বলে দাবি করেছিল।

[ad_2]