Press "Enter" to skip to content

৫ই আগস্ট জম্মু কাশ্মীর থেকে রদ হয়েছিল ৩৭০ ধারা, এবার এই দিনেই হবে রাম মন্দিরের শিলন্যাস

নয়া দিল্লীঃ আগামী ৫ই আগস্ট প্রধানমন্ত্রী () অযোধ্যায় () ের () শিলন্যাস করবেন। সুপ্রিম কোর্টে রামলালা পক্ষে সিদ্ধান্ত আসার পর হিন্দু সম্প্রদায় এই দিনেরই অপেক্ষা করছিল। রাম মন্দির ট্রাস্টের বৈঠকে আগামী ৫ই আগস্ট শিলন্যাসের তারিখ ঠিক করেছে। তবে এই তারিখের পিছনেও রয়েছে একটি তাৎপর্যপূর্ণ কাহিনী।

আপনাদের মনে আছে হয়ত, গত বছরের ৫ই আগস্টে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ সংসদে জম্মু কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা তুলে দেওয়ার ঘোষণা করেছিলেন। এর সাথে সাথে জম্মু কাশ্মীরের থেকে লাদাখকে আলাদা করে দুটি প্রদেশকেই কেন্দ্র শাসিত অঞ্চল হিসেবে ঘোষণা করেছিলেন। আপনাদের জানিয়ে দিই যে, বিজেপি এবং রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘের অ্যাজেন্ডাতে আগাগোড়াই জম্মু কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা রদ করা আর অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণ করা ছিল। এছাড়াও তাঁদের অ্যাজেন্ডাতে ছিল এক দেশ, এক আইন লাগু করা। আরএসএস এর প্রধান তিনটি অ্যাজেন্ডার মধ্যে প্রথমটি মোদী সরকার ৫ই আগস্ট ২০১৯ এ পূরণ করেছিল।

আর সেই ক্রমেই আগামী ৫ই আগস্ট রাম মন্দিরের শিলন্যাস করে দ্বিতীয় অ্যাজেন্ডাও সম্পূর্ণ হতে চলেছে। গত বছরই রাম মন্দির নির্মাণের রাস্তা সুগম হয়ে গিয়েছিল। গত বছর নভেম্বর মাসে সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারক রঞ্জন গগৈ রামলালার পক্ষে সিদ্ধান্ত দিয়েছিলেন। আর তখন থেকেই অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণের অপেক্ষা করা হচ্ছিল। মোদী সরকার আর মন্দির ট্রাস্ট এবার রাম মন্দিরের শিলন্যাসের জন্য পাঁচই আগস্টের দিন নির্ধারণ করেছে।

ভোপালের বিখ্যাত জ্যোতিষআচার্য রাজেশ বলেন, পাঁচই আগস্টের দিন মন্দিরের শিলন্যাসের জন্য খুবই শুভ। এই দিন হিন্দু ক্যালেন্ডার অনুযায়ী, ভাদো মাসের দ্বিতীয় তিথি। ঘনিষ্ঠ নক্ষত্রের এই তিথিতে যেই ধার্মিক কাজ করা হবে, সেটা খুব শুভ হবে। আচার্য রাজেশ বলেন, ভূমি পূজন সকাল ১১ টা থেকে ১২ টার মধ্যে করা সবথেকে উত্তম।