Press "Enter" to skip to content

ব্রেকিং নিউজঃ সেনার হানায় খতম দশ জঙ্গি, এখনো চলছে তল্লাশি, মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে অনুমান

ছত্তিসগড়ের বীজাপুরে সেনা আর নকশালের সংঘর্ষে সেনার গুলিতে খতম হল ১০ নকশালি জঙ্গি। সেনার জওয়ানেরা ঘটনাস্থল থেকে প্রচুর পরিমাণে অস্ত্র সস্ত্র এবং বিস্ফোটক উদ্ধার করে। শোনা যাচ্ছে নকশালিদের সাথে সেনার এই সংঘর্ষ অনেক সময় ধরে চলেছিল। গোটা এলাকা গুলির আওয়াজে ভরে উঠেছিল। এনকাউন্টার শেষ হওয়ার পর সেনার জওয়ানেরা এলাকার তল্লাশি চালিয়ে নকশাল জঙ্গিদের মৃত দেহ এবং বিস্ফোটকের সাথে প্রচুর পরিমাণে অস্ত্র সস্ত্র উদ্ধার করে।

বিজাপুরের পুলিশ সুপার মোহিত গর্গ বৃহস্পতিবার মিডিয়াকে এই সমন্ধ্যে তথ্য দিতে গিয়ে বলেন, ভেরমগড় থানার মাড় এলাকায় বৃহস্পতিবার সকালে সেনার জওয়ানেরা পেট্রলিং করছিল। আর তখন হঠাৎ নকশালি জঙ্গিরা সেনার উপর গুলি চালায়। নকশালি দের গুলির জবাবে পাল্টা গুলি চালায় সেনার জওয়ানেরা।

File Pic

সেনা জওয়ানদের পাল্টা হানায় খতম হয় ১০ নকশাল জঙ্গি। তাঁদের মৃতদেহ উদ্ধার করে সেনা। তাঁদের থেকে প্রচুর পরিমাণে অস্ত্র সস্ত্র এবং গোলা বারুদ ও উদ্ধার করা হয়। মৃতদের সংখ্যা এখনো বাড়তে পারে। তল্লাশি অভিযান এখনো জারি রেখেছে সেনার জওয়ানেরা।

বিজাপুর পুলিশ সুত্র থেকে পাওয়া অনুযায়ী, গতকাল রাতে ইন্দ্রাবতি নদীর আশেপাসে কিছু নকশাল জঙ্গিদের থাকার পায় সেনা এবং পুলিশের আধিকারিকরা। আর সেই জন্যই পুলিশ আর সেনা যৌথ অভিযান চালিয়ে সেখানে তল্লাশির জন্য যায়। সেনার তল্লাশি অভিযান চালানোর সময় নকশাল জঙ্গিরা সেনার উপর গুলি চালাতে শুরু করে।

সেনা জওয়ানদের পাল্টা গুলিতে খতম হয় ১০ নকশালি জঙ্গি। পুরো এলাকা এখন ঘিরে রেখেছে সেনা। এখনো জারি আছে তল্লাশি অভিযান। তবে এখনো বেশ কিছু নকশালি জঙ্গিদের মৃত দেহ পাওয়া যেতে পারে বলে জানিয়েছে সেনা। যদিও এটাই সেনার হাতে প্রথম সাফলতা না। এর আগেও বহুবার নকশাল প্রভাবিত এলাকায় গিয়ে নকশালদের কড়া হাতে দমন করেছে

8 Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published.