Press "Enter" to skip to content

এই মুহূর্তের সবথেকে বড় খবরঃ একসাথে চার সাংসদ যোগ দিলেন বিজেপিতে

বড়সড় ঝটকা খেলেন তেলেগু দেশম পার্টি (TDP) এর সভাপতি তথা অন্ধ্র প্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী চন্দ্রবাবু নাইডু। ওনার দলের সাংসদ TDP ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। TDP এর রাজ্যসভার সাংসদ টিজি ভেঙ্কটেশ, ওয়াই.এস চৌধুরী, জি.এম রাও এবং এম রমেশ আজ উপ রাষ্ট্রপতি তথা রাজ্যসভার স্পীকার ভেঙ্কাইয়া নাইডুকে ইস্তফা দিয়ে TDP এর বিধানমণ্ডলকে বিজেপিতে যুক্ত করার প্রস্তাব দিয়েছেন।

এরপর টিজি ভেঙ্কটেশ, ওয়াই.এস চৌধুরী এবং এম রমেশ বিজেপির কার্যকারী সভাপতি জেপি নাড্ডা এর উপস্থিতিতে দিল্লী বিজেপি অফিসে দলের সদস্যতা নেন। টিডিপিএ চতুর্থ সাংসদ জি.এম রাও অসুস্থ থাকার কারণে তখন উপস্থিত থাকতে পারেন নি। কিন্তু তিনিও পরে বিজেপির সদস্যতা নেন।

সাংসদদের ইস্তফার পর টিডিপি সভাপতি চন্দ্রবাবু নাইডু বলেন, ‘আমরা বিজেপির সাথে লড়াই রাজ্যকে বিশেষ তকম দেওয়ার জন্য আর রাজ্যের স্বার্থে করেছিলাম। আমরা বিজেপির সঙ্গ ত্যাগ করে কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর পদও ছেড়েছিলাম। পার্টির এখন দুঃসময় চলছে, তবে নেতা আর কর্মীরা ঘাবড়াবেন না। সু সময় আসবে।”

এর আগেই টিডিপি সাংসদ টিজি. ভেঙ্কটেশ বিজেপিতে যোগ দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছিলেন। উনি বলেছিলেন, ‘হ্যাঁ আমি টিডিপি ছাড়ছি আর বিজেপিতে যোগ দিচ্ছি। আমি অখিল ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদ আর ভারতীয় জনতা যুব মোর্চার সাথে আগেও যুক্ত ছিলাম।”

আপনাদের জানিয়ে রাখি, ২০১৪ সালে লোকসভা নির্বাচনের সাথে সাথে অন্ধ্র প্রদেশে বিধানসভার নির্বাচনও হয়েছিল। সেবার বিজেপির সাথে জোট করে অন্ধ্র প্রদেশে ক্ষমতায় এসেছিলেন চন্দ্রবাবু নাইডু। এরপর ২০১৮ তে বিজেপির সঙ্গ ত্যাগ করেন উনি। আর তখন থেকেই কেন্দ্র থেকে বিজেপিকে হটানোর জন্য উঠেপড়ে লেগেছিলেন।

তিনি দেশের প্রতিটি রাজ্য ঘুরে ঘুরে বিজেপি বিরোধী হাওয়া তৈরি করার চেষ্টা চালিয়েছিলেন। এবং অ-বিজেপি জোট গড়ার জন্য প্রতিটি আঞ্চলিক দলের সাথে হাত মিলিয়েছিলেন। কিন্তু এবারের লোকসভা ভোট আর অন্ধ্রপ্রদেশের বিধানসভা ভোটে উনি চরম পরিমাণে বিপর্যস্ত হন। প্রধানমন্ত্রী হওয়া তো দূরের কথা, উনি এবার বিধানসভা নির্বাচনে রাজ্যে মাত্র ১ টি আসন পেয়ে মুখ্যমন্ত্রীর পদও হারান।