মোদীকে আটকাতে একজোট বিরোধীরা! জেনারেল সংরক্ষণ বিলের বিরুদ্ধে সুপ্রিম কোর্টে দায়ের হলো পিটিশন।

পরশু দিন লোকসভা ও গতকাল রাজ্যসভায় জেনারেল সম্প্রদায়কে সংরক্ষণ দেওয়া ইস্যুতে বিল পাশ করানো হয়েছে। লোকসভায় বিজেপির লোকসভায় বহুমত ছিল তাই লোকসভায় বিল পাশ হওয়া কোনো বড় ব্যাপার ছিল না। কিন্তু রাজ্যসভায় বিল পাশ করানো একটু চ্যালেঞ্জের ব্যাপার ছিল। এর উপর চিন্তন করেই মোদী সরকার লোকসভা নির্বাচনের ঠিক আগেই বিল পেশ করেছিল যাতে প্রত্যেক পার্টি বিলের সমর্থনে ভোট দিতে বাধ্য হয় এবং বিল সহজে পাশ হয়। আর সরকারের পরিকল্পনা অনুযায়ী হলোও তাই, লোকসভা ভোটের কথা চিন্তা করে কোনো পার্টি এই বিলের বিরোধ করেনি যার জন্য খুব সহজেই দুই সদনে বিল পাশ হয়।

তবে এই জেনারেল সংরক্ষণ বিলের ইস্যুতে এখন একটা বড় চমকে দেওয়ার মতো খবর সামনে এসেছে। প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী, মোদী সরকার জেনারেল সংরক্ষণ যে বিল পাশ করিয়েছে তার উপর সুপ্রিম ভারতে পিটিশন দায়ের করা হয়েছে। দুই সদনে এই বিলের বিরুদ্ধে তেমন কোন বিরোধ না হওয়ায় বিল পাশ করানো সক্ষম হয়েছে। তাহলে কোন পার্টি কোন ব্যক্তি বিশেষ এই বিলের বিরুদ্ধে পিটিশন দায়ের করেছে এ নিয়ে রাজনৈতিক মহলে তোলপাড় হয়ে উঠেছে।

আসলে “Youth For Equality” নামক এক সংস্থা সুপ্রিম কোর্টে কেন্দ্র সরকারের বিলের বিরুদ্ধে পিটিশন দায়ের করেছে। জানিয়ে দি, এই সংগঠনের প্রেসিডেন্ট এর নাম কৌশল কান্ত মিশ্র। তবে এই সংগঠন নিজস্ব মতে পরিচালিত কোনো সংগঠন নয়। দেশের বেশ কিছু রাজনৈতিক দলের সাথে এই সংগঠনের সম্পর্ক জুড়ে রয়েছে।

জানিয়ে দি দিল্লীর মুখ্যমন্ত্রী তথা আম আদমি পার্টির নেতা অরবিন্দ কেজরিওয়াল এই সংগঠনের একজন সক্রিয় সদস্য। যদিও কেজরিওয়াল এই বিষয়টি দেশের জনগণের থেকে লুকিয়ে রাখার চেষ্টা করেন। শুধু কেজরিওয়াল নন, কংগ্রেস পার্টিও এই সংগঠনের সাথে মুখ্যভাবে জড়িত রয়েছে বলে অভিযোগ সামনে এসেছে। প্রশান্ত ভূষণ নামক উকিল এই সংগঠনের খুবই ঘনিষ্ট। ‘Youth For Equality’সংগঠনের সাথে কেজরিওয়াল যুক্ত হলেও এটা বামপন্থীদের একটা সংগঠন বলেও দাবি অনেকের।

Leave a Reply

you're currently offline

Open

Close