Press "Enter" to skip to content

আমেরিকার পর এবার চীন থেকে এলো পাকিস্থানের জন্য খারাপ খবর! যা শুনে প্রত্যেক ভারতীয়র মন খুশিতে ভরে যাবে।

কিছুদিন আগে ের বেশ কিছু মিডিয়া দাবি করেছেন যে, পাকিস্তান হল ের অংশ। আজ সেই ব্যাপার নিয়েই আপনাদের সাথে আলোচনা করব। আপনাদের জানিয়ে রাখি, কিছুদিন আগে একটা বিরাট বিস্ফোরণ হয়েছিল পাকিস্তানে, সেই বিস্ফোরনের ক্ষমতা এতটাই ছিল যে এর ফলে কেঁপে গিয়েছিল পুরো পাকিস্তান। আর চীন সীমান্ত পর্যন্ত পৌঁছে গিয়েছিল এই বিরাট আওয়াজ। এবং সাথে সাথে পাকিস্তান সহ পুরো চীন এই ব্যাপার নিয়ে উত্তেজিত হয়ে পরে। এরফলে চীনের বহু সংবাদ মাধ্যম এই ব্যাপারে খবর আনার জন্য পাকিস্তান পৌঁছে গিয়েছিল। সেখানে গিয়ে চীনের সংবাদ মাধ্যম গুলি সমস্ত ব্যাপারে ভালো ভাবে খোঁজ খবরাখবর নেয়। আর এই সময় চীনের সেই সকল সংবাদ মাধ্যমের মধ্যে একটি চ্যানেল বিশেষ এক দাবি করেন বসেন। তারা যে দাবিটি করেছেন সেই দাবি শোনার পরে একদিকে যেমন মানুষজন অবাক হয়ে গিয়েছেন অপর দিকে তাদের বহুদিনের হাজার প্রশ্নের জবাব তারা পেয়ে গিয়েছেন। সেই সংবাদ মাধ্যমের দাবি হল পাকিস্তান হচ্ছে ের ব্যাক্তিগত সম্পত্তি।

কিছুদিন আগে পাকিস্তানে বসবাসকারী চীনের দূতাবাসের উপর এক হামলা হয়েছিল। এর ফলে বেশ ক্ষব্ধ হয়েছিল চীনের বেশ কিছু সংবাদ মাধ্যম। আর সেই সকল সংবাদ মাধ্যমের মধ্যে একটি চ্যানেল এই ঘটনার তদন্ত করতে গিয়ে পাকিস্তানের একটা নকশা তৈরি করেন। সেই নকশায় তারা দাবি করেন যে পাকিস্তান হল ভারতের সম্পত্তি। এই খবর জানার পর সকলে অবাক হয়ে গেলেও চীনের সরকার কিন্তু কিছু প্রতিক্রিয়া দেননি।

এর কারণ হল দেশের শাসন ভার যেদিন থেকে মোদীজির হাতে এসেছে সেই দিন থেকে অন্য শত্রু দেশ গুলির পাশাপাশি চীনও বেশ ভালো রকম জব্ধ হয়ে গিয়েছেন। এর প্রমাণ চীন যখন ডোকালাম নিয়ে ভারত কে হুঁশিয়ারি দেন সেই সময় ভারত সরকারও নিজেদের অবস্থানে অনড় থাকেন অর্থাৎ চীন কে বুঝিয়ে দেন যে এই ভারত আর আগের মত নেই। এখন চীনের চোখ রাঙানি কে ভারত আর ভয় পায় না।

এছাড়াও মোদীজির সাথে বেশ কয়েকবার একান্তে বৈঠক করেন চীনের প্রেসিডেন্ট সি জিপিং। তখন তিনি মোদীজির কথা শুনে ভালো মতোই বুঝে গিয়েছেন যে, ভারত কে আর ভয় দেখিয়ে জব্ধ করা সম্ভব নয়। মোদী আমলে এখনকার ভারত অনেক বেশি শক্তিশালী। ভারত এখন পৃথিবীর যেকোনো দেশের সাথে মোকাবিলা করবে প্রস্তুত। এছাড়াও ফের একবার ডিসেম্বর মাসে মুখোমুখি হতে চলেছে ভারত এবং চীনের নেতামন্ত্রীরা। সেখানেও যে আবারও মোদীজিকে চেনা ভঙ্গিমায় পাওয়া যাবে সেটা বলাই বাহুল্য।
#অগ্নিপুত্র

11 Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published.