Press "Enter" to skip to content

“যে সমস্ত বাঙালি বিজেপিকে সমর্থন করছে তারা সকলেই মূর্খ গাধা” : সংযুক্তা বসু, বামপন্থী বুদ্ধিজীবী।

পশ্চিমবঙ্গের বাঙালীরা স্বাধীনতার পর থেকেই কংগ্রেস ও বামপন্থীদের জিতিয়ে এসেছে এবং এখন বাংলায় তৃণমূলের শাসন চলছে। তবে পশ্চিমবঙ্গে বামপন্থীরা বহু সময় ধরে শাসন করেছে এমনকি মমতা ব্যানার্জীর শাসন আসার পরেও মুখ্য বিরোধী দল হিসেবে সিপিএম ছিল। কিন্তু এখন বাঙালিরা বিজেপিকে সমর্থন করতে শুরু করেছে। এই কারণে এখন বাংলায় প্রধান বিরোধী দল হিসেবে উঠে এসেছে। দেশের মধ্যে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যে বিজেপির বৃদ্ধির হার সর্বাধিক। তবে এই বিষয়টি কোনোভাবেই হজম করতে পারছে না বামপন্থীরা। তাই এখন বামপন্থীরা খোলাখুলি সমর্থক বাঙালিদের গাল দিতে শুরু করেছে।

সংযুক্তা বসু নামে এক বামপন্থী বুদ্ধিজীবী খোলাখুলি বিজেপি সমর্থক বাঙালিদের গালাগালি দিয়েছে। যেসব বাঙালী বিজেপিতে যোগ দিয়েছে বা বিজেপিকে সমর্থন করে বা বিজেপিতে যোগদান করছে তাদেরকে এই বামপন্থী বুদ্ধিজীবী মূর্খ, বুদ্ধিহীন জাহিল বলে ঘোষণা করেছে। আসলে সিপিএম পশ্চিমবঙ্গ থেকে দিন দিন সাফ হয়ে যাচ্ছে এবং বিজেপি দিন দিন শক্তিশালী হয়ে নিজেদের গোড়া মুজবুত করছে। এটাই সহন করতে না পেরে এবার বিজেপি সমর্থকদের গালি দিলাম বামপন্থী

বাংলায় অনেক আগেই কংগ্রেস সাফ হয়ে গিয়েছে, বিজেপির জন্য সিপিএম তৃতীয় স্থানে চলে গেছে। সংযুক্তা বাসু বলেছেন, যে বিজেপির সমর্থন করে বা বিজেপির সংস্পর্শে এসেছে তারা সকলেই মূর্খ জাহিল। মনে করা হয়, সংযুক্তা বাসু একজন তীব্র বামপন্থী মানসিকতার মহিলা এবং কানায়া কুমারের মতো উন্মাদীদের সমর্থক।

অর্থাৎ সংযুক্তা বাসুর মতে বাঙালিদের উচিত বিজেপি থেকে দূরে থাকা। যে বাঙালিরা বিজেপিকে সমর্থন করে তারা সকলে মূর্খ ইডিয়ট আর যারা বামদের সমর্থন করে তারা দেশপ্রেমী, এমটাই বলতে চান বাম বুদ্ধিজীবী।