Press "Enter" to skip to content

দিল্লীর মুসলিম এলাকায় বাম্পার ভোটিং, বিজেপির থেকে বেশি চিন্তা কংগ্রেস আর AAP এর !

দিল্লীর সাতটি লোকসভা আসনে ষষ্ঠ দফায় ১২ই মে ভোট গ্রহণ প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে। এবার সবার নজর ২৩ মে ফলাফলের দিকে টিকে আছে। কিন্তু এবারের ভোটিংয়ে কিছু এমন প্যাটার্ন দেখা গেছে যে, দিল্লীর শাসক দলের ঘুম উড়ে গেছে। ২০১৪ সালে দিল্লীতে ৬৫.১ শতাংশ ভোট পড়েছিল। কিন্তু এবার সেই তুলনায় কম পড়েছে। কিন্তু মুসলিম এলাকা গুলোতে বাম্পার ভোট পড়েছে। আর সেটা গোটা সমীকরণ বদলে দেওয়ার জন্য যথেষ্ট। আর মুসলিম এলাকায় বাম্পার ভোটিং হওয়ার কারণে BJP এর থেকে চিন্তা বেশি বেড়েছে দিল্লীর শাসক দল AAP আর Congress এর।

মুসলিম ভোটারেরা বেশি করে ভোট দিলে বিজেপির সমস্যা হওয়ার কথা। কিন্তু এবার সেটা উল্টো হতে দেখা যাচ্ছে। স্থানীয় সূত্র থেকে জানা যাচ্ছে যে, কংগ্রেস আর আপ মুসলিমদের বেশি করে ভোট দেওয়া নিয়ে চরম চিন্তিত। দুই দলই মুসলিম ভোট ভাগ হয়ে যাওয়ার আশঙ্কায় আছে। আর এই জন্য এর সরাসরি লাভ বিজেপি পেতে চলেছে।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায় যে, ভোটার আর প্রার্থীদের মধ্যে সুসম্পর্ক তৈরি না হওয়ার জন্য এবার ভোট কম হয়েছে। তাছাড়াও প্রচারের সময় বড়বড় নেতারা প্রার্থীদের ঠিকঠাক পরিচয় করিয়ে দেয়নি, এবং বিজেপি বিরোধী দল গুলো এলাকার সমস্যা না তুলে অন্য ইস্যু নিয়ে মুখর হয়েছিল। আর এই জন্যই ভোটাররা পোলিং বুথে যাওয়ার খুব একটা বেশি ইচ্ছে প্রকাশ করেনি।

এবার দিল্লীর সাতটি আসনের মধ্যে উত্তর পূর্ব দিল্লী তে ৬৩.৪৫% ভোটিং। চাঁদনী চৌকে ৬২.৬৩%। পশ্চিম দিল্লীতে ৬০.৬৪%। উত্তর পশ্চিম দিল্লীতে ৫৮.৭২%। দক্ষিণ দিল্লীতে ৫৮.১৩% আর নয়া দিল্লীতে ৫৬.৯১ শতাংশ ভোটিং হয়েছে। যেটা গতবারের লোকসভা ভোটের থেকে তুলনামূলক ভাবে কম।