Press "Enter" to skip to content

সনাতন হিন্দু ধর্মের প্রতি ঝুঁকে পড়ছে পুরো বিশ্ব! আমেরিকায় আস্ত চার্চকে ভেঙে পরিণত করা হলো হিন্দু মন্দির।

ভারতে ধর্মনিরপেক্ষতার নামে হিন্দু ধর্মের বিনাশ হলেও, বিশ্বের অন্যান্য প্রান্তে ক্রমশ ছড়িয়ে পড়ছে সনাতন হিন্দু ধর্ম। একদিকে ভারতে অযোধ্যা রামজন্মভূমিকে জঙ্গি বাবরের জমি বলে দাবি করে মুসলিমরা আদালতে দারস্ত হয় অন্যদিকে পাশ্চাত্যের মানুষ নিজেদের ধর্ম ত্যাগ করে প্রবেশ করছে হিন্দু রীতিনীতিতে। জানিয়ে দি, আমেরিকার পোর্টসমাউথে এক গির্জাকে ভেঙে তৈরি করা হচ্ছে মন্দির। ৩০ বছরের চার্চকে ভেঙে মন্দির তৈরির দিকে ঝুঁকেছে স্থানীয় মানুষজন। ৩০ বছরের পুরনো এই গির্জাকে স্বামী নারায়ণ মন্দির করা হবে বলে জানা গিয়েছে।

 

অবাক করার বিষয় এই যে এটা নিয়ে মোট ৬ টি গির্জাকে মন্দিরে পরিণত করেছে আমেরিকাবাসী। খ্রিস্টান ধর্মের প্রতি শ্রদ্ধা হারিয়ে এখন হিন্দু ধর্মের প্রতি আকর্ষিত হচ্ছেন বহু আমেরিকাবাসী। ক্যালিফোর্নিয়া, লস এঞ্জেলেস, ভার্জেনিয়ার মতো শহরগুলিতে লাগাতার প্রসার ঘটছে হিন্দু ধর্মের। এমনকি লন্ডন থেকে ম্যানচেস্টারেও বেশকয়েকটি চার্চকে পরিণত করা হয়েছে ে।

মহন্ত ভগতপ্রিয় দাস জানিয়েছেন, ের সমস্থ অংশ ভাঙ্গাভাঙি না করে শুধু বিশেষ কিছু অংশ পরিবর্তন করা হবে। এরপর সেখানে প্রাণ প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে মন্দির তৈরি কাজ সম্পন্ন হবে। পোর্টসমাউথে যে ভেঙে মন্দির তৈরি করা হচ্ছে সেই ের এলাকা প্রায় ৫ একর জমি জুড়ে বিস্তিত।

ভার্জেনিয়া এলাকায় প্রায় ১০ হাজার ভারতীয় হিন্দুও বসবাস করেন যাদের থেকে বেশ ভলোরকম অনুপ্রেরনিত খ্রিস্ট ধর্মের মানুষজন। বিশ্বের অন্যান্য প্রান্তে হিন্দু ধর্ম ব্যাপকভাবে বিস্তারলাভ করছে এটা তার একটা বড়ো উদাহরণ। কিন্তু দুঃখজনক বিষয় এই যে ধর্মনিরপেক্ষতাবাদী ও কট্টরপন্থীদের দাপটে হিন্দু ধর্মের প্রাণকেন্দ্র ভারত এখন ধৰ্ম টিকিয়ে রাখার জন্য অস্তিত্বের সংগ্রাম লড়ছে। কারণ বিগত দশকে ভারতের বেশ কয়েকটি টুকরো ভেঙে ইসলামিক দেশে পরিণত হয়েছে।

Be First to Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.