Press "Enter" to skip to content

করোনা ভাইরাসের সঙ্কটের মধ্যেই জাপান আর তাইওয়ানের দিকে তাক করে মিসাইলের পরীক্ষণ করলো চিন!

নয়া দিল্লীঃ গোটা বিশ্ব করোনাভাইরাসের (Coronavirus) মহামারীর কারণে ত্রস্ত। আর এই মহামারীর মধ্যে চিন (China) ১১ এপ্রিল আরও একবার গোটা বিশ্বের সামনে নিজদের শক্তি প্রদর্শন করে। ের নৌসেনা রিয়েলেস্টিক মেরিটাইম অপারেশনে অংশ নেয়। এর ঠিক ১০ দিন আগে চিন একটি অজ্ঞাত জায়গায় যুদ্ধ অভ্যাস করেছিল। এই কারণে প্রতিবেশী দেশের চিন্তা বেড়ে যায়। চীনের (China) এই যুদ্ধ অভ্যাসে সবথেকে বেশি () আর তাইওয়ান (Taiwan) সমস্যায় পড়েছে।

এইবার চিন দক্ষিণ চিন সমুদ্রে গাইডেড যুক্ত ইউলিন আর সুচাংগ যুদ্ধ জাহাজ থেকে মিসাইল ফায়ার করে। এই দুটি যুদ্ধ জাহাজ থেকে প্রচুর পরিমাণে বোমা, মিসাইল আর গাইডেড মিসাইলের পরীক্ষণ করা হয়। চীনের অদখিন এলাকার পাশে স্থিত সমুদ্রের পাশে আছে জাপান আর তাইওয়ান। এখন এই দুই দেশে চিন্তা হল, চিন করোনা ভাইরাসের আড়ালে তাঁদের উপর হামলা না করে দেয়। চীনের এই যুদ্ধ অভ্যাস দেখে জামান চীনের পার্শবর্তী মিয়াকোজিমা দ্বীপে সেনার সংখ্যা আরও বাড়িয়ে দেয়।

তাইওয়ানও অভি করেছে যে, চিন তাঁদের বায়ুসীমার যুদ্ধ বিমান পাঠিয়েছিল। এরপর তাইওয়ানের লড়াকু বিমান তাঁদের যুদ্ধ বিমান গুলোকে তাড়া করে। চিন আবারও তাইওয়ানকে উস্কানর জন্য যুদ্ধ বিমান পাঠিয়েছিল। চিনের এই কাজ দেখার পর তাইওয়ান নিজেদের এলাকায় যুদ্ধ অভ্যাস করতে বাধ্য হয়। এখন গোটা বিশ্বের প্রতিরক্ষা বিশেষজ্ঞরা ভাবছে যে, জাপান আর তাইওয়ানের সবথেকে বড় ভয় হল, চিন না তাঁদের উপর করোনার ফায়দা তুলে আক্রমণ করে দেয়।

https://platform.twitter.com/widgets.js

আরেকদিকে নর্থ কোরিয়া ২৯ মার্চ ২০২০ তে রাতের অন্ধকারে সুপারলার্জ মাল্টিপল রকেট লঞ্চারের সফল পরীক্ষণ করে। উত্তর কোরিয়ার সরকারি সংবাদ মাধ্যম KCNA সেই পরীক্ষণের ছবি রয়াটার্সকে দেয়। উত্তর কোরিয়া ভাইরাসের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করা দেশ গুলোকে বিরক্ত করতে গত এক মাসে চারটি পরীক্ষণ করে। ২৯ তারিখ করা ওই পরিক্ষনে উত্তর কোরিয়া কম দুরত্বের মিসাইলের সফল পরীক্ষণ করে।

চিনের সরকারি সংবাদমাধ্যম গ্লোবাল টাইমস জানায় যে, চিনের পিপলস লিবারেশন আর্মির ৭৮ তম গ্রুপের সেনা প্রধান ট্যাংকের সাথে রাতে যুদ্ধঅভ্যাস সাড়ে। শুধু তাই নয়, চিন ২৯ মার্চে অত্যাধুনিক পোর্টেবল অ্যান্টি ট্যাংক মিসাইলের এক্সপোর্ট করার অনুমতিও দিয়ে দেয়। গ্লোবাল টাইমসের খবর অনুযায়ী, ওই মিসাইল বুধবারের মধ্যে বিদেশী খরিদ্দারের হাতে তুলে দেওয়া হবে।