Press "Enter" to skip to content

অবৈধ বাংলাদেশিদের প্রতি মমতার টান দেখে তৃণমূল থেকে পদত্যাগ করলেন দীপেন পাঠক।

আসামে NRC প্রকাশিত হওয়ার পর থেকে দেশে তুমূল রাজনৈতিক আলোড়ন সৃষ্টি করেছে। আসলে NRC দেশের জনগণের স্বার্থে হলেও এই ইস্যুতে বিজেপিকে আক্রমণ করতে শুরু করেছে কংগ্রেস এবং তৃণমূল কংগ্রেসের সুপ্রিমো মমতা ব্যানার্জী। মমতা ব্যানার্জী NRC ইস্যুতে কেন্দ্রকে আক্রমণ করতে গিয়ে গৃহযুদ্ধ এবং রক্তগঙ্গা এর মতো উস্কানি মন্তব্য প্রয়োগ করেন। যাতে দেশের মিডিয়া এবং সুবুদ্ধিসম্পন্ন মানুষের উঠেপড়ে লাগে। মমতার মন্তব্যের পর পশ্চিমবঙ্গে রাষ্ট্রপতি শাসন জারির দাবি তোলেন সুব্রামানিয়াম স্বামী।

তবে শুধু বিজেপি নয় অবৈধ বাংলাদেশিদের প্রতি মমতার টান দেখে এবার তৃণমূল থেকে পদত্যাগ করলেন আসামের প্রদেশ অধ্যক্ষ দীপেন পাঠক। দীপেন পাঠক আসামের সমস্ত পদ থেকে পদত্যাগ করেছেন দীপেন পাঠক। এর কারণ হিসেবে উনি মমতা ব্যানার্জীর অবৈধ বাংলাদেশিদের প্রতি প্রীতিকে দায়ী করেন। দীপেন পাঠক বলেন, মমতা ব্যানার্জী গত ৩ দিনে যা বক্তব্য রেখেছেন তা অত্যন্ত লজ্জাজনক।

আজ দীপেন পাঠক আসামের তৃণমূল কংগ্রেসের পার্টি থেকে ইস্তফা দেন। পাঠক বলেন ‘মমতা ব্যানার্জী অবৈধ অনুপ্রবেশকারীদের নিয়ে ভুলভাল বকছেন আর আমরা দেশদ্রোহিতায় মমতা ব্যানার্জীর সাথ দেব না। মমতা ব্যানার্জীর বক্তব্যে পরিবেশ নষ্ট হয়ে যাচ্ছে।’

শুধু এই নয় দীপেন পাঠক বলেন, আমি পার্টি এই জন্য ছেড়েছি যে যদি আমরা মমতা ব্যানার্জীর দলের সাথে যুক্ত থাকি তাহলে আমার নামও দেশদ্রোহীদের সাথে যুক্ত করা হবে। এই জন্যেই আমি পার্টি ছেড়ে দিয়েছি। উনি বলেন, আমি এমন নেতার সাথে দাঁড়াতে চাই না যারা অবৈধ বাংলাদেশিদের জন্য দেশের বিরুদ্ধে বক্তব্য রাখছেন।