Press "Enter" to skip to content

দুশ্চিন্তায় তৃণমূল! রোজভ্যালি মামলা নিয়ে তৃণমূলের দুই বড়ো নেতাকে ডেকে পাঠালো ইডি।

বহু রাজ্যবাসীকে প্রায় সর্বহারা করে দিয়েছিল সারদা কান্ড। সেই সারদায় নিজের শেষ সঞ্চয় টুকু রেখে ছিল রাজ্যের অনেক গরিব পরিবার। সেই সব কিছু চলে যাওয়ায় গরিব খেটে খাওয়া মানুষ গুলির মৃত্যু ছাড়া আর কিছু উপায় ছিল না। সেই সারদা মামলায় নাম জরিয়েছে রাজ্যের বর্তমান শাসক দল তৃনমূল কংগ্রেসের অনেক হেবিওয়েট নেতার। তাদের জেরা করার পর তারা নিজেদের কুকর্মের কথা স্বীকার করেও নিয়েছেন। এর জন্য তারা জেল খেটেছেন।

ফের শাসক দল ের উপর আবার চাপ বাড়ল। এবার রোজভ্যালি কান্ড নিয়ে চাপে পড়ে গেল কংগ্রেস। সামনেই লোকসভা ভোট তার আগেই এই ব্যাপার প্রকাশ্যে চলে আসায় বেশ চাপ হয়ে গেল কংগ্রেসের। এমনটা হতে পারে সেই আশঙ্কা আগেই করেছিলেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা। এবার ইডি ডেকে পাঠালো দুই হেভিওয়েট ী নেতাকে। কাল থেকে শুরু করে পরশু দিন অব্দি চলবে দুই নেতা কে তলব করা।

তৃণমূলের বিখ্যাত নেতা তথা মমতার ঘনিষ্ঠ তাপস পাল-কে ডাকা হয়েছে আগামীকাল। এবং তার পরের দিন ডাকা হয়েছে সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়কে যিনি কলকাতা – উত্তরের সাংসদ। এই মামলার জন্য এর আগেও এই দুজন নেতা কে তথ্যে অসঙ্গতির কারনে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। পরে অবশ্য তারা জামিন পেয়ে যায় তাদের শারীরিক অসুস্থতাজনিত কারন দেখিয়ে। জামিনের পর সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায় ফের দলে যোগদান করে। কিন্তু তাপস পাল ফিরে যান তার পুরোনো জগত অভিনয়ে।

কান্ড

তবে এবারের এই তলব সমস্তরকম জ্বল্পনা উস্কে দিল। তবে কি সামনেই ভোট আর তার আগেই জেলে যাবেন তৃনমূলের কোনো হেভিওয়েট নেতা। রাজনৈতিক মহল মনে করছেন যে এবার এই ইস্যুতে বেশ চাপ বাড়ল তৃনমূলের।
#অগ্নিপুত্র