Press "Enter" to skip to content

এবার অভিনেতা শাহরুখ খানের বিরুদ্ধে ফতোয়া জারি! কারন জানলে…

মৌলবী উলেমা দ্বারা ফতোয়া জারি করা এখন প্রায় নিত্য ঘটনা হয়ে উঠেছে। ধর্মীয় গোঁড়ামিতা থেকে বেরিয়ে এসে জীবনযাপন করলেই জারি হয়ে যাচ্ছে ফতোয়া। কিছুদিন আগে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী মুক্তার আব্বাস নাকভির বোনের বিরুদ্ধে ফতোয়া জারি করা হয়েছিল এবং ইসলাম থেকে খারিজ করার হুমকি দেওয়া হয়েছিল। এখন ফিল্ম অভিনেতা শারুখ খানের বিরুদ্ধেও জারি হলো ফতোয়া। জন্মাষ্টমী উপলক্ষে শারুখ খান হাঁড়ি ফাটিয়ে ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় দেওয়া মাত্র ক্রুদ্ধ উলেমারা এমন ফতোয়া জারি করেন যাতে পুরো বলিউডের মধ্যে এই নিয়ে চর্চা শুরু হয়েছে। সোমবার জন্মাষ্টমী উপলক্ষে শাহরুখ খান মুম্বাইয়ের নিজের বাড়িতে স্ত্রী গৌরী, ছেলে আব্রাহামের সাথে হিন্দুদের পবিত্র উৎসব দইহান্ডির হাঁড়ি ফাটান । যারপর ক্রোধিত উলেমারা শারুখ খানের বিরুদ্ধে ফতোয়া জারি করে দিয়েছে এবং তিনি আরো একবার বিতর্কের মধ্যে চলে এসেছেন। এই ফতোয়া এই জারি করা হয়েছে  কারণ উনি মুম্বাইতে নিজের বাড়িতে দইহান্ডির কার্যক্রম রাখেন।

এরপর উনি সমস্ত ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় পেশ করেন এবং মৌলনারা উনার উপর ক্রুদ্ধ হয়ে ফতোয়া জারি করে দেন। মৌলানাদের বক্তব্য শারুখ খান কেন হিন্দু উৎসব পালন করেছেন। স্বাভাবিক ভাবেই একটা নোংরা মানসিকতা প্রকাশ করে ফতোয়া জারি করা হয়েছে। শারুখ প্রেমীদের দাবি, ফতোয়া জারির মাধ্যমে কিছু মৌলানা উলেমা দেশে সেকুলারিজম এর পরিবেশকে নষ্ট করার চেষ্টা করেছে। শাহরুখ খান দইহান্ডির হাঁড়ি ভাঙার পর কট্টরপন্থী উলেমারা ক্রোধিত হয়ে উঠেন।

হিন্দু উৎসব পালনকে শরীয়তের বিরুদ্ধে এবং  ইসলামে হারাম বলে ঘোষণা করেছে। শাহরুখ জন্মাষ্টমী পালন দেখে মুফতি আরশাদ ফারুকী বলেন, উনি একজন সেলিব্রেটি তাই উনাকে খেয়াল রাখতে হবে যে কোন ধর্মের উৎসব কিভাবে পালন করবেন। ফারুকী বলেন, অন্য ধর্মের উৎসবে সামিল হওয়া আলাদা ব্যাপার কিন্তু ইসলামিক  নয় এমন উৎসব পালন করা এবং নিজের বাড়িতে উৎসবের আয়োজন করা ইসলাম বিরোধী। উলেমা নাদিম উল ওয়াজদি বলেন, ইসলামে অন্য ধর্মের উৎসব পালন সরাসরি ভাবে নিষিদ্ধ এবং শরিয়া কানুনের বিরোধী।কিছু মুসলিম ধৰ্মগুরু শাহরুখ খানকে ইসলাম থেকে খারিজ করে দেওয়ার কথা বলে ফতোয়া যথাযত বলে দাবি করেন।

কিছু উলেমা এমনভাবে ফতোয়া জারি ও তর্ক বিতর্ক প্রস্তুত করছে এতে স্পষ্ট যে এই কট্টরপন্থী উলেমারা শারিয়া কানুন লাগু করার জন্য প্রস্তুত এবং এরা হিন্দু উৎসব পালনের চরম বিরোধী। এই শিশু এতটাই গম্ভীর হয়ে উঠেছে যে পুরো বলিউড ইন্ডাস্ট্রি কেঁপে উঠছে। জানিয়ে দি উত্তরপ্রদেশে সম্প্রতি কিছুদিন উলেমারা লাগাতার ডায়লগবাজি ও ফতোয়া জারি করছিল। এখন মীরা হক ফাউন্ডেশেনের অভিযোগের পর যোগী সরকার এই মুসলিম ধর্মগুরুরদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ নিয়েছে। প্রসঙ্গত, এর আগেও ক্রিকেটার মহম্মদ স্বামী ও তার স্ত্রীকে কট্টরপন্থী চিন্তাধারার শিকার হতে হয়েছিল। এমনকি একবার ভগবান শিবের ছবি ও নিজের সপরিবারে ছবি টুইটারে পোস্ট করে এবং একবার ফ্যাশনাবলে পোশাকে ছবি পোস্ট করে কট্টরপন্থীদের শিকার হতে হয়েছিল।  আর এখন প্রথমবার জন্মাষ্টমী পালন করতে গিয়ে ফতোয়ার সম্মুখীন হতে হচ্ছে বলিউড অভিনেতা শারুখ খানকে।