Press "Enter" to skip to content

নতুন কাশ্মীরের প্রথম ঈদ আজ, নামাজ পড়ার জন্য করা হয়েছে বিশেষ ব্যাবস্থা

জম্মু কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধার রদ করার পর, আজ ওই রাজ্যে প্রথম বকরি পালিত হচ্ছে। বিগত এক সপ্তাহে কাশ্মীরের পরিস্থিতি খুব দ্রুত স্বাভাবিক হয়েছে। বকরি ঈদ এর আগে এটিএম, ব্যাঙ্ক আর বাজারের অনেক দোকানই খুলে যায়। আর বকরি ঈদকে মাথায় রেখে জম্মু কাশ্মীর প্রশাসন মানুষের কেনাকাটির জন্য নিষেধাজ্ঞায় ঢিল দিয়েছে। আধিকারিক সুত্র অনুযায়ী, উপত্যকায় এখনো পর্যন্ত কোন হিংসার খবর নে। আর বিগত এক সপ্তাহে একটা গুলিও চলেনি।

ের জেলা শাসক শাহিদ একবাল চৌধুরী অনুযায়ী, কাশ্মীরের পরিস্থিতি এখন শান্তিপূর্ণ। মানুষ এবং যান বাহনের যাতায়াতে ঢিল দেওয়া হয়েছে। প্রতিটি সংবেদনশীল এলাকায় মানুষের স্বস্তির জন্য ম্যাজিস্ট্রেট পাঠানো হয়েছে। শ্রীনগরে ছয়টি বাজার খোলা হয়েছে, সেখানে কুরবানির জন্য ২.৫ লক্ষ মানুষ ভিড় জমিয়েছিল। রান্নার গ্যাস, মুরগি, ডিম আর সবজির জন্য প্রতিটি বাড়িতে মোবাইল ভ্যান যাচ্ছে। ইন্টারনেট পরিসেবা আর টেলিফন সার্ভিস বন্ধ থাকার জন্য ৩০০ টি বিশেষ টেলিফোন বুথ বানানো হয়েছে। প্রতিটি জেলায় রেশন দোকান বানানো হয়েছে। কাশ্মীরের ৩৬৯৭ টি রেশন দোকানের মধ্যে ৩৫৫৭ টি দোকানে মানুষের দৈনন্দিন চাহিদা মেটানো হচ্ছে।

বিদ্যুৎ এবং জলের অভাব মেটাতে বিশেষ ব্যাবস্থা রাখা হয়েছে। উপত্যকায় ের দোকান আর হাসপাতাল গুলোকে খুলে দেওয়া হয়েছে। ডক্টর এবং মেডিকেল স্টাফ ও আছে। হাসপাতাল গুলোতে পর্যাপ্ত পরিমাণে ওষুধের ব্যাবস্থা রাখা হয়েছে। আর শ্রীনগর থেকে বিমান পরিসেবাও চালু করা হয়েছে। সমস্ত বিমানই তাঁদের নির্ধারিত সময় মতই ছাড়ছে। যাত্রীদের টিকিট মুভমেন্ট পাস হিসেবে বানানো হয়েছে। এরফলে যাত্রীরা তাঁদের বাড়ি ফিরতে কোন সমস্যার সন্মুখিন হচ্ছে না।