Press "Enter" to skip to content

হিন্দু উৎসব বয়কট গান্ধী পরিবারের! কংগ্রেসের এই মূখ্য তিনজন বিশেষ হিন্দু বয়কট করলেন দীপাবলী উৎসব!

পুরো দেশের হিন্দু সমাজ এখন কালী পূজা ও দীপাবলির উৎসবে মেতে উঠেছে তখন নিজেদের ব্রাহ্মণ বলে দাবি করা রাহুল গান্ধীর পরিবার দীপাবলি বয়কট করলেন। রাহুল গান্ধী যিনি নিজেকে শিবভক্ত ও পৈতেধারী ব্রাহ্মন বলে দাবি করেন উনি দীপাবলির উৎসবে ভারত ছেড়ে অন্য দেশে রওনা দিয়েছেন। গিয়াসউদ্দিন গাজীর বংশধর রাহুল গান্ধী ও তার পরিবার ভোটের সময় মন্দিরে মন্দিরে ঘুরে বেড়ান। কিন্তু নিজেদের মুসলিম পার্টির তকমায় যাতে দাগ না লাগে তার জন্য হিন্দু উৎসব দীপাবলি বয়কট করেছে গান্ধী/খান পরিবার। দিপাবলীতে রাহুল গান্ধীর দ্বারা নিযুক্ত কর্মীরা সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করে দিয়েছেন কিন্তু রাহুল গান্ধী ইংল্যান্ড পলায়ন করেছেন।

ইংল্যান্ড এ রাহুল গান্ধীর ঠাকুরমা থাকেন না, এমত অবস্থায় রাহুল গান্ধী ইংল্যান্ড মালিয়ার সাথে দেখা করতে যান নাকি পাকিস্থানের আধিকারিকদের সাথে দেখা করতে যান সেই নিয়ে সন্দেহ রয়েছে। শুধু এই নয় রাহুল গান্ধীর সাথে সাথে সোনিয়া, প্রিয়াঙ্কা দুজনেই দীপাবলির বয়কট করেছেন। প্রত্যেক বছরের মতো এ বছরেও এই পরিবার হিন্দু উৎসব বয়কট করেছেন।

জানলে অবাক হবে রাহুল গান্ধী আজ পর্যন্ত নিজের বোন প্রিয়াঙ্কা ভাদ্রার সাথে রাখিবন্ধন উৎসব পালন করেননি। অথচ এরা দুজনেই দিল্লিতে থাকেন এবং সম্পর্কে নিজের ভাইবোন। আসলে মনে করা হয়, রাহুল প্রিয়াঙ্কা খ্রিষ্টান বা মুসলিম ধৰ্ম গ্রহণ করেছেন আর ওই ধৰ্মগুলিতে এই উৎসব পালন করা হয়না। এমনকি প্রিয়াঙ্কা নিজের ছেলে মেয়েদের নামও খ্রিষ্টানদের ও মুসলিমদের নামের মতো করে রেখেছেন।

তবে উৎসব পালন না করলেও রাহুল গান্ধী নিজেকে পৈতেধারী ব্রাহ্মণ বলে দাবি করেন। মোদী ক্ষমতায় আসার পর থেকে রাহুল গান্ধী নিজেকে হিন্দু বলে দাবি করেছেন। যদিও মন্দিরে নামাজ পড়ার মতো বসার জন্য পুরোহিতের কাছে একাধিকবার ধমক খেয়েছেন। সম্প্রতি এক পুরোহিতকে নিজের গত্র পর্যন্ত বলতে পারেননি রাহুল গান্ধী।